Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১১ আষাঢ় ১৪২৯

রাস্তা পেল নওগাঁর বিল পাড়ের মানুষ

রাস্তা পেল নওগাঁর কালীপুর-ভীমপুরবাসী 
ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশ সৃষ্টি হওয়ার পর এই প্রথম রাস্তা পেল বিল পাড়ের মানুষ। যেখানে যোগাযোগের ব্যবস্থা না থাকার কারণে জমির ফসল একসময় পরিবহনের অব্যবস্থাপনার কারণে নষ্ট হতো জমিতেই। এমনকি যেটুকু পরিবহন সম্ভব হতো সেটাও দ্বিগুণের বেশি খরচ করত কৃষকরা। এ ছাড়া শহরে যাতায়াতের জন্য প্রায় ২৫-৩০ কি.মি পথ ঘুরে যেতে হতো।

নওগাঁ সদর উপজেলার হাসাইগাড়ি ইউনিয়নের কালীপুর টু ভীমপুর রাস্তার দৈর্ঘ্য প্রায় ৪১০০ মিটার, প্রস্থ্যে প্রায় ১৬ ফিট এবং ফসলি ভূমি থেকে উচ্চতা স্থানভেদে প্রায় ১৭ ফিট। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের বরাদ্দে ১৫৯ টন চাল, ১৫৯ টন গম এবং নগদ অর্থ ৭৫ লাখ ৫৮ হাজার ৯২৫ টাকা ব্যয়ে নির্মিত এই মাটির রাস্তার কাজ প্রায় শেষের দিকে।

হাসাইগাড়ি ইউনিয়নে বারোমাসি বিল এলাকায় প্রায় ১ হাজার পরিবার বসবাস করে থাকেন যাদের বাৎসরিক প্রধান আয়ের উৎস হচ্ছে কৃষিকাজ। ওই বিলে প্রায় ১০-১২ হাজার বিঘার ধান প্রতি বছর উৎপাদন হয়ে থাকে। এ ছাড়া অন্য সবজি জাতীয় ফসলও উৎপাদন করে থাকেন স্থানীয় চাষিরা। এর আগে যেখানে ইরি-বোরো মৌসুমে জমি থেকে ফসল ঘরে তুলতে ৩ হাজার থেকে ৪ হাজার টাকা খরচ হতো, সেখানে এ বছর এই রাস্তা হওয়ার পর ৫০০ থেকে ১০০০ টাকা খরচ হবে বলে আশা করছেন কৃষকরা।

এ ছাড়া শহরে জরুরি প্রয়োজনে যেখানে ২৫-৩০ কি.মি রাস্তা ঘুরে যেতে হতো এখন ১২-১৫ কি.মি মধ্যেই শহরে প্রবেশ করতে পারবেন স্থানীয়রা। এ ছাড়া নিচু ভূমি হওয়ায় বর্ষা মৌসুমে যেখানে থৈ-থৈ পানি থাকার কারণে নৌকা নিয়ে যাতায়াত করতে হতো, এখন এই রাস্তা হওয়ার কারণে সব মৌসুমেই প্রচলিত গাড়ি ব্যবহার করে খুব অল্প সময়ের মধ্যে যাতায়ত করতে পারবেন এমটাই জানাচ্ছিলেন কয়েকজন উপকারভুগী এলাকাবাসী। বাংলাদেশ সৃষ্টি হওয়ার পর প্রথম যাতায়াত ব্যবস্থার এমন সুবিধা পাওয়ায় সরকার প্রধান ও স্থানীয় সংসদ সদস্যের প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছেন উপকারভুগীরা।

নওগাঁ সদর উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ কর্মকর্তা (পি আই ও) মাহাবুবুর রহমান জানান, বাংলাদেশ সৃষ্টি হওয়ার পর এই প্রথম ওই এলাকার মানুষ রাস্তা পেল। যার অবদান বর্তমান সরকারের এবং বিশেষ করে সদর-৫ আসনের সংসদ ব্যারিস্টার নিজাম উদ্দিন জলিল। এতে করে ওই অঞ্চলের মানুষের কৃষিখাতে ব্যাপক উন্নয়ন হবে বলে তিনি আশা করেন।

স্থানীয় সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার নিজাম উদ্দিন জলিল জন বলেন, বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর গ্রাম থেকে শহর আর শহর থেকে গ্রাম সর্বোত্র উন্নয়নের ছোয়া বিরাজমান। তারই ধারাবাহিকতায় হাসাইগাড়ি ইউনিয়নের কালীপুর-ভীমপুর গ্রামের মানুষদের অনেক দিনের দাবি ছিল এই রাস্তা নির্মাণ করে দেওয়ার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বাংলাদেশে গ্রামকে শহরে পরিণত করার যে পরিকল্পনা তার একটি দৃষ্টান্ত এই রাস্তাটি।

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS