Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

যে ৩ শর্তে কুবির রেজিস্ট্রার দপ্তরের তালা খুলল

যে ৩ শর্তে কুবি রেজিস্ট্রার দপ্তরের তালা খুলল
কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) রেজিস্ট্রার অপসারণ ও বিভিন্ন দাবি আদায়ের লক্ষ্যে চলমান আন্দোলন আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে।

সোমবার (২৪ জানুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের ভার্চ্যুয়ালি ক্লাসরুমে বিভিন্ন পক্ষের আলোচনা শেষে এ সিদ্ধান্ত নেয় কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় কর্মকর্তা-কর্মচারী ঐক্যপরিষদ।

আলোচনায় কুবি উপ-উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে ৩ দফা দাবি মানার শর্তে আন্দোলনকারীরা আন্দোলন স্থগিত করে। এরপর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরের উপস্থিতে আন্দোলনকারীরা রেজিস্ট্রার দপ্তরের তালা খুলে দেন।

আলোচনায় উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. হুমায়ুন কবির, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো. আসাদুজ্জামান, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. দুলাল চন্দ্র নন্দী, সাধারণ সম্পাদক ড. মোকাদ্দেস-উল-ইসলাম, প্রক্টর ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন।

এ ছাড়াও অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মো. আবু তাহের, সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুল লতিফ, ৩য় শ্রেণির কর্মচারী সমিতির সভাপতি দিপক চন্দ্র মজুমদার, কর্মচারী সমিতির সভাপতি সাইফুল ইসলাম, বঙ্গবন্ধু কর্মচারী পরিষদের সভাপতি মো. জসিম উদ্দিনসহ ছাত্রলীগের সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ উপস্থিত ছিলেন।

আন্দোলকারীদের দাবিসমূহ:

১. আগামী ৬ ফেব্রুয়ারির মধ্যে বর্তমান রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) অধ্যাপক ড. মো. আবু তাহেরকে অপসারণ করে কর্মকর্তাদের মধ্যে থেকে রেজিস্ট্রারের দায়িত্ব না দিলে ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে আন্দোলন চলবে।

২. কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দাবি-দাওয়া আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারির ভেতর সিন্ডিকেট করে বাস্তবায়ন করতে হবে। অন্যথায় আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।

৩. যেসব দাবি-দাওয়া সিন্ডিকেট ছাড়াও করা যায় সেসব বাস্তবায়ন করতে হবে।

প্রসঙ্গত, কুবি রেজিস্ট্রারের বিরুদ্ধে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পদোন্নতি বঞ্চিত করা, জামাত-শিবিরপন্থীদের বাড়তি সুবিধা প্রদান, বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন নিয়োগে দুর্নীতিসহ নানান অভিযোগ তুলে রেজিস্ট্রারকে অপসারণের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়টির কর্মকর্তা-কর্মচারীদের চারটি সংগঠন একত্রে গত বুধবার থেকে প্রশাসনিক ভবনে আন্দোলন করছেন।

এমআই/এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS