Mir cement
logo
  • ঢাকা সোমবার, ১৬ মে ২০২২, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

চট্টগ্রাম সংবাদদাতা, আরটিভি নিউজ

  ১৩ জানুয়ারি ২০২২, ২৩:৩৩
আপডেট : ১৩ জানুয়ারি ২০২২, ২৩:৪৪

চট্টগ্রামে বাস মালিকদের নতুন সিদ্ধান্ত

মাস্ক বাধ্যতামূলক রেখে চট্টগ্রামে বাস মালিকদের নতুন সিদ্ধান্ত
ফাইল ছবি

করোনা নতুন ধরন ওমিক্রন মোকাবিলায় গণপরিবহনে অর্ধেক যাত্রীর পরিবর্তে যত সিট তত যাত্রী নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে চট্টগ্রাম সড়ক পরিবহন মালিক গ্রুপ। এতে ভাড়া বাড়ছে না, নির্ধারিত ভাড়াই দিতে হবে যাত্রীদের।

আগামী শনিবার (১৫ জানুয়ারি) থেকে চট্টগ্রাম মহানগরসহ সব গণপরিবহনে এই নিয়ম চালু হবে বলে জানান চট্টগ্রাম সড়ক পরিবহন মালিক গ্রুপের মহাসচিব মঞ্জুরুল আলম মঞ্জু।

বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) বিকেলে চট্টগ্রামের কদমতলী বিআরসিটি বাস টার্মিনাল এলাকায় আন্তঃজেলা বাস মালিক সমিতি কার্যালয় চট্টগ্রাম সড়ক পরিবহন মালিক গ্রুপের এক সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন পরিবহন নেতা মো. শাহজাহান।

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সিনিয়র সহসভাপতি কফিল উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় চট্টগ্রাম সড়ক পরিবহন মালিক গ্রুপের মহাসচিব মঞ্জুরুল আলম মঞ্জু বলেন, সরকারে নির্দেশনা অনুযায়ী আমরা করোনার বিধিনিষেধ মেনে গণপরিবহন চালু রাখব। আমরা চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন, পুলিশ কমিশনারসহ সবাইকে লিখিতভাবে আবেদন জানাব যেন সব পরিবহন শ্রমিক টিকার আওতায় আসে। কারণ, সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী সব চালক ও হেলপারের টিকা দিয়ে দিতে হবে।

তিনি আরও বলেন, যত সিট তত যাত্রী রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে আগামী শনিবার থেকে সকল বাস ও গণপরিবহন চলবে। কোনো অতিরিক্ত ভাড়া নেওয়া হবে না। এ ছাড়া বাসে প্রত্যেক যাত্রী ও চালক-হেলপারের মুখে মাস্ক বাধ্যতামূলক থাকতে হবে। গণপরিবহনে কোনো যাত্রী দাঁড়িয়ে থাকতে পারবে না। শনিবার থেকে আমাদের একটি মনিটরিং টিম কাজ করবে।

চট্টগ্রাম সড়ক পরিবহন মালিক গ্রুপের যুগ্ম সম্পাদক মো. শাহাজাহান বলেন, চট্টগ্রামের পরিবহন শ্রমিকদের মধ্যে অর্ধেকই টিকার আওতায় আসেনি। তাই আজকের সভায় আমাদের দাবি ছিল নগরের পাঁচটি স্পট- অক্সিজেন, বহদ্দারহাট, কদমতলী, অলঙ্কার, মাদারবাড়ি বাস টার্মিনালে ভ্রাম্যমাণ টিকাকেন্দ্র চালু করার। আমাদের পরিবহন শ্রমিকরা টিকার আওতায় এলে করোনা মোকাবিলায় আমরা শতভাগ সরকারকে সহযোগিতা করব।

এমআই/টিআই

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS