Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১ কার্তিক ১৪২৮

টেকনাফ (কক্সবাজার), আরটিভি নিউজ

  ১১ অক্টোবর ২০২১, ২৩:৩৮
আপডেট : ১১ অক্টোবর ২০২১, ২৩:৪২

রোহিঙ্গা শিবিরে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্রসহ আটক ৫

রোহিঙ্গা শিবিরে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্রসহ আটক ৫
রোহিঙ্গা শিবিরে আটক ৫

কক্সবাজারের উখিয়া শিবিরে অভিযান চালিয়ে দেশীয় অস্ত্রসহ ৫ রোহিঙ্গাকে আটক করেছে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)। তাদের দাবি তারা কথিত আরসার সদস্য ও রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী।

সোমবার (১১ অক্টোবর) দুপুর ২টার দিকে উখিয়া উপজেলার ৯ নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরে কাঁচাবাজারের সামনে রাস্তায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে এপিবিএন সদস্যরা।

এরা হলেন-৯ নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরের আব্দুস সালামের ছেলে মুক্তার আহাম্মদ (৫০) তার ছেলে ওমর ফারুক (১৯), নুর আলমের ছেলে মোহাম্মদ সলিম (৩৮) ও এগারো নম্বর রোহিঙ্গা শিবিরের লিয়াকত আলীর ছেলে মো: আরাফাত (২৫), সৈয়দ হোসেনের ছেলে মনসুর আলম(২৫)।

৮ এপিবিএন ‍সূত্রে জানা গেছে, অধিনায়ক এসপি মোহাম্মদ সিহাব কায়সার খানের সার্বিক দিক নির্দেশনায় অবৈধ অস্ত্র, মাদক উদ্ধার এবং দুস্কৃতিকারীদের গ্রেপ্তারের লক্ষে শিবিরে ব্লক রেইড পরিচালনা করা হয়। এমন সময় গোপন সূত্রে জানা গেছে, কাঁচাবাজারের সামনের রাস্তার পাশের গলিতে ডাকাতি করার জন্য কয়েকজন রোহিঙ্গা ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এমন সময় এপিবিএন সদস্যরা ওই স্থানে অভিযান চালানো হয়। এ সময় দূর্বৃত্তরা পালিয়ে যাওয়ার লোহার রডের তৈরি ডাকাতির সরঞ্জামসহ ওই ব্যক্তিদের আটক করা হয়। সে সময় বাকি ৫ থেকে ৭ জন পালিয়ে যায়।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. কামরান হোসেন সত্যতা নিশ্চিত করে আরটিভি নিউজকে বলেন, আটককৃত ওমর ফারুক, মুক্তার আহাম্মদ, মোহাম্মদ সলিম কথিত আরসার অন্যতম নেতা ডা: ওয়াক্কাস ওরফে নুর কলিম এর ঘনিষ্ঠ সহচর এবং আটককৃত মো. আরাফাত কথিত আরসার তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী, অপর আটককৃত মনসুর আলম চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী এবং কথিত আরসার সদস্য। তাদের উখিয়া থানায় সোপর্দ করে মামলা রুজু করা হয়েছে।

এমআই/ এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS