Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৩ আশ্বিন ১৪২৮

নারী চিকিৎসককে বিয়ে, প্রথম স্ত্রীর মামলায় কাস্টমস কর্মকর্তা কারাগারে

চিকিৎসককে বিয়ে, প্রথম স্ত্রীর মামলায় কাস্টমস কর্মকর্তা কারাগারে
জুবায়ের রহমান

জয়পুরহাটের কালাই উপজেলার বিনইল গ্রামের এক স্কুল শিক্ষিকার দায়ের করা যৌতুক মামলায় স্বামী সহকারী কাস্টমস কর্মকর্তা জুবায়ের রহমানকে (৩২) কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকেলে জয়পুরহাট চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. জাহাঙ্গীর আলম এ আদেশ দেন। এ সময় আসামি পক্ষে অ্যাডভোকেট মাকসুদ ও বাদী পক্ষের আইনজীবী হিসেবে মানিক হোসেন শুনানিতে অংশ নেন।

অভিযুক্ত জুবায়ের রহমান সাতক্ষীরা সদরের পলাশপোল এলাকার কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট বিভাগের সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত আছেন।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণী থেকে জানা গেছে, ২০১৪ সালে কালাই উপজেলার বিনইল গ্রামের আজগর আলীর মেয়ে স্কুল শিক্ষিকা খাইরুন নেছার সঙ্গে সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলার জুবায়ের বিয়ে হয়। বিয়ের সময় খাইরুন শিক্ষিকা হিসেবে চাকরি করলেও জুবায়ের ছিলেন বেকার। পরবর্তীতে জুবায়ের একটি ব্যাংকে কিছু দিন চাকরি করেন। পরে তিনি সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ লাভ করেন।

এদিকে জুবায়ের প্রথম বিয়ে গোপন করে এক নারী চিকিৎসককে বিয়ে করেন। বিষয়টি গোপন রেখে জুবায়ের কিছু দিন ধরে খাইরুনের বাবার বাড়ি বিনইল গ্রামে আসা যাওয়ার করতে থাকেন। এক পর্যায়ে খাইরুনের পরিবারের কাছে জুবায়ের ১০ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করেন।

মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) জুবায়ের জামিন লাভের জন্য আদালতে হাজির হলে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক তার জামিন আবেদন না-মঞ্জুর করেন। এবং তাকে কারাগারে প্রেরণের আদেশ দেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী নৃপেন্দ্রনাথ মণ্ডল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

জিএম

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS