Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৪ আশ্বিন ১৪২৮

এক অটোরিকশায় দুই মন্ত্রী 

এক অটোরিকশায় দুই মন্ত্রী 

মন্ত্রী, এমপিরা দামী গাড়ি, দামী যানবাহন চড়েন। এটাই স্বাভাবিক। মন্ত্রীরা যেসব গাড়ি বা অন্য যানবাহন চড়েন সেসব যানবাহনের অগ্রভাবে থাকে জাতীয় পতাকা। কিন্তু গরিবের তিন চাকার অটোরিকশা চড়ে সুনামগঞ্জের নবগঠিত মধ্যনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভায় যোগ দিলেন স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম ও পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান।

আজ শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১টার দিকে মধ্যনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ের সামনে থেকে দুই মন্ত্রী অটোরিকশা গাড়ি করে আলোচনা সভায় যোগ দেন। তবে দুই মন্ত্রীর নিরাপত্তার জন্য অটোরিকশার দুই পাশে পুলিশ সদস্যরা দায়িত্ব পালন করেন।

জানা যায়, দুই মন্ত্রী নতুন মধ্যনগর উপজেলায় আসা উপলক্ষে উপজেলা প্রধান রাস্তাঘাট ও হাটবাজারে বড় বড় ফেস্টুন, তোরণ নির্মাণ করে আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন সংগঠন। সকাল ১১ টার দিকে যখন দুই মন্ত্রী স্পিডবোট যোগে মধ্যনগর উপজেলা থানার সামনে আসেন তখন মধ্যনগরবাসীর পক্ষ থেকে তাদের অভিনন্দন জানানো হয় এবং বাদ্যযন্ত্র বাজিয়ে রাস্তায় নাচ গান করেন মানুষেরা।

পরে উন্নয়ন ভাবনা নিয়ে শীর্ষক মতবিনিময় সভায় যোগ দেন দুই মন্ত্রী। সেখান থেকে বের হয়ে দুই মন্ত্রী স্থানীয়দের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করে অটোরিকশাতে উঠে পরেন।

অটোরিকশার পেছনের দুই সিটে বসেন দুই মন্ত্রী ও সামনের সিটে বসেন সুনামগঞ্জ ১ আসনের সাংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতন। অটোরিকশা চলাকালীন অবস্থায় সামনে থাকা নেতাকর্মীরা জয়বাংলা স্লোগান বলে এবং পেছনে থাকা সাধারণ মানুষ বাদ্যযন্ত্র বাজিয়ে তাদের মধ্যনগর বাজারে মঞ্চের সামনে নিয়ে যায়।

বাবুল মিয়া নামেন একজন বললেন, মন্ত্রী-এমপিরা সাধারণত বড় বড় গাড়ি চড়েন বলে জানি। কিন্তু আজ দেখলাম মন্ত্রীরা আমাদের মতো গরিবের তিন চাকার গাড়িও চড়েন।

মধ্যনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নির্মল দেব আরটিভি নিউজকে বলেন, দুই মন্ত্রী আগমন উপলক্ষে আমরা পুরো উপজেলায় নিরাপত্তা জোরদার করেছি। দুই মন্ত্রী মহোদয় অটোরিকশা চড়েছেন। তবে আমরা সার্বক্ষণিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করেছি।

এসএস

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS