Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১, ১২ শ্রাবণ ১৪২৮

পঞ্চগড় প্রতিনিধি, আরটিভি নিউজ

  ১৮ জুলাই ২০২১, ১৯:২৫
আপডেট : ১৮ জুলাই ২০২১, ১৯:৪১

পঞ্চগড়ের পশুর হাটে মানা হচ্ছে না সামাজিক দূরত্ব

পঞ্চগড়ের পশুর হাটে সামাজিক দূরত্ব নেই 
পশুর হাটে সামাজিক দূরত্ব নেই 

আর মাত্র ৩ দিন পর ঈদ। এরই মধ্যে জমে উঠেছে পঞ্চগড়ের সবচেয়ে বড় রাজনগড় পশুর হাট। তীব্র তাপদাহ উপেক্ষা করে রোববার (১৮ জুলাই) সকাল থেকেই শুরু হয়েছে গরু ছাগল বেচাকেনা। তবে গরুর দাম নিয়ে পাল্টাপাল্টি অভিযোগ দেখা গেছে।

রাজনগড় পশুর হাটে গিয়ে দেখা যায়, তিন জায়গায় পশু বিক্রির ব্যবস্থা করা হয়েছে। পূর্বে যে জায়গায় হাট বসানো হয়েছিল সেখানে ষাঁড় বিক্রয় করা হচ্ছে। ছোট বড় মাঝারি ধরনের বিভিন্ন জাতের ষাঁড় নিয়ে এসেছে ক্ষুদ্র খামারিরা। ক্রেতাও এসেছেন পঞ্চগড়ের বিভিন্ন স্থান থেকে। বিশেষ করে মাঝারি ষাঁড় ৫০ থেকে ৬০ হাজার টাকা দামের বেশি বিক্রি হচ্ছে বলে জানান বিক্রেতারা। তবে স্বাস্থ্যবিধি মানার ক্ষেত্রে তেমন আগ্রহ দেখা যায়নি।

চাকলাহাট এলাকা থেকে আসা আব্দুল্লাহ নামে ক্ষুদ্র গরু ব্যবসায়ী আরটিভি নিউজকে জানান, ৩টি বলদ গরু নিয়ে এসেছি গত বৃহস্পতিবারের হাটে। দাম উঠেছিল ১ লাখ ৯০ হাজার টাকা। কিন্তু আজকের হাটে বিক্রি করলাম ১ লাখ ৮৫ হাজার টাকা।

এদিকে রাজনগড় হাট ইজারাদারের অধীনে পঞ্চগড়-টুনিহাট সড়কের উত্তর পার্শে জনবসতি এলাকার ফাঁকা জায়গায় গাভী গরু ক্রয় বিক্রয় চলছে। সেখানেও স্বাস্থ্যবিধির কোন বালাই নেই। সকাল থেকে সেখানেও ক্রেতা বিক্রেতার ভিড় লক্ষ্য করা যায়। অন্যদিকে পশুর হাট নিয়ন্ত্রণে পুলিশ দুটি কন্ট্রোল রুম রয়েছে। সেখানে ২ জন উপ-পরিদর্শকসহ ৩ জন পুলিশ সদস্য তদারকি করছেন।

একই সঙ্গে দুটি ভেটেরিনারি মেডিকেল টিম কাজ করছে উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. শহিদুল ইসলামের নেতৃত্বে ১০ জন কর্মচারী। তবে সরেজমিনে ওই কর্মকর্তাকে পাওয়া যায়নি। একজন ভেটেরিনারি মাঠ সহকারি মো. রেজাউল করিমের সঙ্গে দেখা হলে তিনি আরটিভি নিউজকে জানান, আজ রোববার দুপুর ৩টা পর্যন্ত ৫০ জন বিক্রেতার তালিকা করেছি তাদের গরুগুলো পরীক্ষা করা হয়েছে।

জিএম

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS