Mir cement
logo
  • ঢাকা বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ৯ আষাঢ় ১৪২৮

ইফতারির জন্য বউ-শ্বশুরকে খাটের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন

ইফতারির জন্য বউ-শ্বশুরকে খাটের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন
প্রতীকী ছবি

সিলেট ওসমানীনগর উপজেলার সাদিপুর ইউপির চরসম্মানপুর গ্রামে শ্বশুরবাড়ি থেকে ইফতারি ও জামাকাপড় না পাওয়ায় রশি দিয়ে বেঁধে স্ত্রী ও বৃদ্ধ শ্বশুরকে নির্যাতন করার অভিযোগ উঠেছে মামুন মিয়া (২৬) নামের এক জামাই ও তার পরিবারের লোকজনের বিরুদ্ধে।

রোববার (৯ মে) সকাল ৯টার দিকে ওই গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। পরে এ ঘটনায় ভুক্তভোগী গৃহবধূর বাবা উপজেলার সাদিপুর ইউপির দক্ষিণ কালনিচর গ্রামের বৃদ্ধ আব্দুস সহিদ (৬০) বাদী হয়ে ওসমানীনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

গৃহবধূর বাবার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ওসমানীনগর উপজেলার সাদিপুর ইউপির চরসম্মানপুর গ্রামের আমির আলীর ছেলে মামুন মিয়ার সঙ্গে প্রায় এক বছর আগে একই ইউপির দক্ষিণ কালনিচর গ্রামের আব্দুস সহিদের মেয়ে জায়দা বেগমের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে স্বামী মামুনসহ তার পরিবারের লোকজন গৃহবধূ জায়দাকে নির্যাতন করে আসছেন। এ বিষয়ে একাধিকবার সালিশ বৈঠকে মীমাংসা হয়।

পরে রোববার (৯ মে) সকাল ৯টার দিকে শ্বশুরবাড়ির ইফতারি ও জামাকাপড় না আসায় গৃহবধূ জায়দাকে তার স্বামী মামুনসহ পরিবারের লোকজন রশি দিয়ে খাটের সঙ্গে বেঁধে অমানবিক নির্যাতন করে।

বিষয়টি ভুক্তভোগীর বাবা আবদুস সহিদ জানতে পেরে মেয়ের বাড়ি চরসম্মানপুর যান। সেখানে আব্দুস সহিদকে বিভিন্ন ভাষায় গালমন্দ করে আব্দুস সহিদকেও চড়থাপ্পড় মারেন জামাই মামুন মিয়ার বাবা আমির আলী। এ সময় সেখান থেকে পালিয়ে এসে জায়দার বাবা আব্দুস সহিদ মেয়েকে উদ্ধারসহ ঘটনার সুষ্ঠু বিচারের জন্য ওসমানীনগর থানায় রোববার বিকেলে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

এ বিষয়ে ওসমানীনগর থানার ওসি শ্যামল বণিক বলেন, এ ঘটনাটি তদন্তের জন্য একজন এসআইকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। সত্যতা পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

জিএম

RTV Drama
RTVPLUS