Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ২৫ বৈশাখ ১৪২৮

যে কারণে গৃহবধূ-যুবকের গলায় জুতার মালা!

That's why the housewife-young man's necklace of shoes!
যে কারণে গৃহবধূ-যুবকের গলায় জুতার মালা!

মাদারীপুর রাজৈর উপজেলার সুতারকান্দি গ্রামে পরকীয়া প্রেমের অভিযোগ তুলে গ্রাম্য শালিস বসিয়ে এক গৃহবধূ ও এক যুবককে জুতাপেটা করা হয়েছে। এ সময় তাদের জুতার মালা পরিয়ে গ্রাম ঘুরিয়ে ঘরে তালা দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়া হয়েছে।

গত ১৯ এপ্রিল ওই গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পরে এ ঘটনায় মামলা হলে রাজৈর থানা পুলিশ ৩ শালিসকারীকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠিয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মাদারীপুর রাজৈর উপজেলার পেয়ারপুর গ্রামের এক ব্যক্তির (৩৮) সঙ্গে রাজৈর উপজেলার সুতারকান্দি গ্রামের এক গৃহবধূর (৪৬) পরিচয়ের সূত্রে উভয়ের বাড়ি যাতায়াত ছিল। ১৯ এপ্রিল সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ওই যুবক সুতারকান্দি গ্রামে বেড়াতে আসে। এর কিছুক্ষণ পরে একই বাড়ির ইমরান ফকির, কালু ফকির, শাকিব আকন, শামীম ফকির, রানা ফকিরসহ ১০ থেকে ১১ জন মিলে তাদের ২ জনকে বেঁধে ফেলে। পরে বাড়ির উঠানে শালিস বসায় তারা। এ সময় শালিসের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ওই ব্যক্তি ও গৃহবধূকে ১০০ বার করে জুতাপেটা করা হয়। একই সাথে তাদের জুতার মালা পরিয়ে গ্রাম ঘুরানো হয়। এর পরে ঘরে তালা ঝুলিয়ে ওই গৃহবধূর পরিবারকে এলাকা থেকে বের করে দেয়া হয়।

শনিবার (২৪ এপ্রিল) রাতে শালিসে উপস্থিত কালু ফকির, ইমরান ফকির, শামীম ফকিরসহ ৭ জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাত ৮ থেকে ১০ জনে রাজৈর থানায় মামলা দায়ের করেছে ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূর স্বামী। পুলিশ এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে আজিজুল ফকির, কালু ফকির ও শাকিব আকনকে গ্রেপ্তার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে।

ভুক্তভোগী গৃহবধূর স্বামী বলেন, ‘দীর্ঘ ৩০ বছর ধরে স্ত্রীর সঙ্গে সংসার করছি। তার চরিত্র খারাপ হলে আমি আগে জানতাম। আমার স্ত্রী অপরাধ করে থাকলে আমি বিচার করতাম। উনারা কেন আমার স্ত্রী ও আমার আত্মীয়কে এভাবে অপমান করলো। আমাদের সন্তান আছে। তাদের বিয়ে দিয়েছি। নাতি-নাতনি রয়েছে। আমরা কীভাবে মানুষের মুখ দেখাব। আমি এর বিচার চাই।’

এ বিষয়ে রাজৈর থানার ওসি শেখ সাদী বলেন, ৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না। অন্য আসামিদের ধরার জন্য চেষ্টা চলছে।

জিএম

RTV Drama
RTVPLUS