logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০৪ মার্চ ২০২১, ১৯ ফাল্গুন ১৪২৭

ইউপি সদস্যের মৎস্য ঘেরে গাঁজা চাষ

চাষ×গাঁজা×জমি×পুলিশ×এসআই×ইউপি×পিরোজপুর×সাইফুল×
ছবি সংগৃহীত

পিরোজপুরের নাজিরপুরে ইউপি সদস্যের ঘের থেকে চাষ করা গাঁজা গাছ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই মৎস্য ঘেরে উপরের জমিতে চাষ করা ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন।

জানা গেছে, উপজেলার শেখমাটিয়া ইউনিয়নের তিন নম্বর ওয়ার্ডের (খেজুরতলা) ইউপি সদস্য (মেম্বার) মো. বাবুল খানের মালিকানাধীন মৎস্য ও সবজি ঘেরে চাষ করা ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন থানা পুলিশ।

আরও পড়ুন : মধ্য রাতে সঙ্গীর কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়া হলো যুবতীকে

ঘের মালিক বালুল খান ওই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

ওই দিন দুপুরে থানা পুলিশের এসআই মো. দেলোয়ার হোসেন, ফারুক হোসেন, সাইফুল হোসেনের নেতৃত্বে একটি দল ওই সব গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন।

থানা পুলিশের এসআই দেলোয়ার হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই জমিতে গাঁজা চাষের খবর পাই।

আরও পড়ুন : এমপি পাপুলের রায়ের কপি পেলো বাংলাদেশ, সিদ্ধান্ত হবে সংসদে

সেখানে গিয়ে দেখা যায় সবজির সঙ্গে গাঁজা চাষ করা হচ্ছে। সেখানে অভিযান চালিয়ে ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করা হয়।

ওই ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা স্থানীয় মো. এহসানুল কবির তুহিন জানান, ইউপি সদস্য বাবুল খানের ওই জমিতে দীর্ঘ দিন ধরে গাঁজা চাষ হচ্ছে।

তিনি স্থানীয় প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ তার ওই জমিতে যাওয়ার সাহস পায় না। গত ২-৩ দিন আগেও সে কিছু গাঁজা গাছ কেটে বিক্রি করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

আরও পড়ুন : ধর্ষণের সময় মেয়েটির চিৎকার থামাতে যা করলো মোশারফ

ইউপি সদস্য মো. বাবুল খান মুঠো ফোনে জানান, গত প্রায় ৭-৮ বছর ধরে ওই জমি আমি খাচ্ছি না। জমিটি আমার ভগ্নিপতি মো. মনির ডাকুয়া চাষ করছেন। কেউ আমাদের বাজাতে ওই জমিতে গাঁজা চাষ করতে পারে।

নাজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আশ্রাফুজ্জামান আরটিভি নিউজকে জানান, বিষয়টি তদন্ত করে এর সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

জেবি

RTV Drama
RTVPLUS