logo
  • ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

দৌলতদিয়াতে নদী পারের অপেক্ষায় ৫ শতাধিক যানবাহন

More than 500 vehicles, are waiting, rtv news
ছবি সংগৃহীত
ফের মাওয়া ঘাটে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে নদী পারাপারের অপেক্ষায় প্রায় পাঁচ শতাধিক পণ্যবাহী ট্রাক আটকা পড়ে আছে।

বৃহষ্পতিবার সকাল থেকেই রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ঘাটের জিরো পয়েন্টে থেকে দৌলতদিয়া-খুলনা মহাসড়কে দুই শতাধিক এবং গোয়ালন্দ মোড় থেকে রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কে প্রায় তিন শতাধিক পণ্যবাহী ট্রাক পারের অপেক্ষায় থাকতে দেখা গেছে।

এর ফলে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন চালকরা। কারণ গোয়ালন্দ মোড় থেকে রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কে আটকে থাকা স্থানে নেই টয়লেট, গোসল, খাবারসহ অন্যান্য সুবিধা। এসব যানবাহনের মধ্যে বেশিরভাগ পণ্যবাহী ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান রয়েছে।

ট্রাকচালকরা জানান, তাদের দুর্ভোগের শেষ নেই। দিনের পর দিন ঘণ্টার পর ঘণ্টা তারা এভাবে নদী পারের অপেক্ষায় সড়কে আটকে থাকেন। আর এ সমস্যা আজকের না, বহু দিনের। সমস্যা সমাধানে একমাত্র উপায় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে একটি ব্রিজ। সড়কে আটকে থেকে তাদের লোকসান গুণতে হয় এবং সময় মতো মালামাল পরিবহন করতে পারেন না। ট্রাকচালকেরা অভিযোগ করে বলেন, শীতে কুয়াশা, বর্ষায় প্রবল  স্রোতে এবং গ্রীষ্মে নাব্য সংকটকে কেন্দ্র করে ঘাট এলাকায় দুর্ভোগ থাকে চরমে। এসব সমস্যা সমাধানে কোনও ব্যবস্থা গ্রহণ করে না কর্তৃপক্ষ।

দৌলতদিয়া ফেরিঘাটের সহকারী ব্যবস্থাপক মো. মাহবুব হোসেন জানান, মাওয়া ঘাট বন্ধ থাকায় দুই ঘাটের গাড়ি একসঙ্গে দৌলতদিয়ায় আসায় পারাপারে এ অচলাবস্থা সৃষ্টি হয়েছে। দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে বর্তমানে ১৮টি ফেরি চলাচল করে। দৌলতদিয়া ফেরিঘাটের ছয় নম্বর ফেরিঘাটে সমস্যা থাকার কারণে ছয়টি ঘাটের মধ্যে তিনটি ঘাট দিয়ে স্বাভাবিকভাবে যানবাহন পারাপার হচ্ছে। তবে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক থাকলে দৌলতদিয়া প্রান্তে কোনও গাড়ি থাকতো না বলে জানান এই কর্মকর্তা।

জেবি

RTVPLUS