logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

লেবানন বিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্ত সেই যুদ্ধজাহাজ দেশে ফিরেছে

Navy warship 'Victory'
নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ 'বিজয়'
ভূ-মধ্যসাগরের লেবাননে মাল্টিন্যাশনাল মেরিটাইম টাস্ক ফোর্সের আওতায় জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে সফলভাবে দায়িত্ব পালন শেষে দেশে ফিরেছে নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ বিজয়।

রোববার ( ২৫ অক্টোবর) সকালে জাহাজটি চট্টগ্রাম নেভাল জেটিতে এসে পৌঁছালে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাগত জানান নৌবাহিনী প্রধান এডমিরাল এম শাহীন ইকবাল। 

এসময় তিনি বলেন, বাংলাদেশ নৌবাহিনীর উপর ন্যস্ত যেকোনো দায়িত্বের চ্যালেঞ্জ পেশাদারিত্বের সাথে মোকাবেলা করতে সক্ষম।  

নৌবাহিনী প্রধান জাহাজে উপস্থিত সকল কর্মকর্তা ও নাবিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনাদের দক্ষতা দিয়ে প্রমাণ করেছেন বিশ্ব শান্তি প্রতিষ্ঠায় বাংলাদেশ নৌবাহিনী সদা তৎপর এবং অকোতভয় বাহিনী ।

গত ৪ আগস্ট লেবাননের রাজধানী বৈরুত বন্দরের একটি ওয়্যারহাউজে ভয়াবহ বিস্ফোরণে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমে মেরিটাইম টাস্কফোর্সের অধীনে নিয়োজিত বাংলাদেশ নৌবাহিনী জাহাজ বিজয় ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং অনেকেই কম বেশি আহত হয়েছিলো । 

আন্তর্জাতিক জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমে অংশ নিতে জাহাজটি ১ ডিসেম্বর ২০১৭ লেবানন গমন করে। যোগদানের পর থেকে জাহাজটি লেবানীজ জলসীমায় মেরিটাইম ইন্টারডিকশন অপারেশন, সন্দেহজনক জাহাজ ও এয়ারক্রাফট এর উপর নজরদারী, দুর্ঘটনা কবলিত জাহাজে উদ্ধার তৎপরতা এবং লেবানীজ নৌবাহিনীর সদস্যদের প্রশিক্ষণ প্রদান করে আসছিল।

জাহাজটি আন্তর্জাতিক মেরিটাইম টাস্ক ফোর্সের অধীনে উন্নত বিশ্বের অন্যান্য দেশের জাহাজসমূহের সাথে নিয়মিত শান্তিরক্ষা টহল ও বিভিন্ন কার্যক্রমে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করে। এতে অন্যান্য দেশের নৌবাহিনী সম্পর্কে ধারণা লাভের পাশাপাশি ঐ সকল জাহাজের সাথে সমুদ্র মহড়ায় অংশ গ্রহণের মাধ্যমে জাহাজের কর্মকর্তা ও নাবিকদের পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধি পেয়েছে। 

তাছাড়া জাহাজটি ভূ-মধ্যসাগরে সাফল্যের সাথে আন্তর্জাতিক দায়িত্ব পালনের মাধ্যমে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করেছে। এর আগে দায়িত্ব পালন শেষে বানৌজা বিজয়’ গত ২৪ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে এবং প্রায় ১০ হাজার ২০ কিঃ মিঃ সমুদ্রপথ অতিক্রম করে দেশে এসে পৌছায়। বর্তমানে বানৌজা সংগ্রাম প্রতিস্থাপক হিসেবে ভূ-মধ্যসাগরে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের আওতায় লেবাননে দায়িত্ব পালন করছে।

জিএম 

RTVPLUS