• ঢাকা মঙ্গলবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৮, ২৯ কার্তিক ১৪২৪

‘স্মার্টকার্ডে এতো ভুল হয় কী করে’

আতিকা রহমান ও চৌধুরী ভাস্কর হোম, আরটিভি
|  ০১ নভেম্বর ২০১৮, ০৮:৩৭ | আপডেট : ০১ নভেম্বর ২০১৮, ১৩:৪৪
সারাদেশে জাতীয় পরিচয়পত্রের স্মার্টকার্ড বিতরণের অংশ হিসেবে সিলেট বিভাগের মৌলভীবাজারেও কার্ড বিতরণ শুরু করেছেন জেলা নির্বাচন অফিস। কিন্তু, মৌলভীবাজারের সদর ও কুলাউড়া উপজেলায় দুই লাখ ২২ হাজার কার্ডে জেলার ইংরেজি বানান ভুল হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে ভীষণ ক্ষুব্ধ মৌলভীবাজারবাসী।

শুধুমাত্র জেলা নয়, নিজের নাম, বাবার নাম ও অনেকের জন্ম তারিখও ভুল হয়েছে। এ নিয়ে প্রবাসী অধ্যুষিত এই এলাকার মানুষ বিড়ম্বনার শিকার হচ্ছেন। তবে নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে ভুল সংশোধনের কাজ চলছে বলে জানান।  

ইতোমধ্যে দুই লাখ কার্ড ভুল ছাপা নিয়ে, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও সমালোচনার ঝড় উঠেছে। বাবার নাম, জন্ম তারিখেও ভুল হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন অনেকেই। ভুক্তভোগীরা বলছেন, এটা আসলে মেনে নেয়া যায় না। পরিচয়পত্রের এই ভুলের জন্য রাষ্ট্রের নাগরিকদের নানা দুর্ভোগের শিকার হতে হয়। আর প্রবাসী অধ্যুষিত এই এলাকার মানুষদের আরও বেগ পোহাতে হবে। এক স্মার্টকার্ড এতো ভুল হয় কি করে। প্রথমদিকে সতর্ক থাকলে এখন কাউকেই কষ্ট করতে হতো না। 

তবে মৌলভীবাজার সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফরহাদ হোসেন জানান, ভুলের বিষয়ে নির্বাচন কমিশনকে জানানো হয়েছে এবং সংশোধনের জন্য তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে। যেহেতু আমাদের প্রত্যেক ভোটারের ফিঙ্গার প্রিন্ট, আইরিশ স্ক্যানার করা আছে, চোখের মণির ছবি নেয়া আছে, এটা খুব বড় সমস্যা হবে না। আমরা এই বিষয়ে নির্দেশনা দিয়ে সংশোধন করবো। 

জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক ব্রি. জে. মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম জানান, ভুল সংশোধনের কাজ চলছে। দ্রুত পুনর্মুদ্রণ করে নতুন স্মার্টকার্ড দেয়া হবে। আমরা নামের কারেকশন করে দ্রুত সময়ে পৌঁছে দেবার পদক্ষেপ নিচ্ছি। যাতে নাগরিকের কোনও ভোগান্তি না হয় আমরা সে ব্যবস্থা নিচ্ছি। 

ভবিষ্যতে যেন এ ধরণের বিভ্রাট না হয় এজন্য আরও সতর্ক থাকার আশ্বাসও দেন জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের এই মহাপরিচালক।  


 

আরও পড়ুন :

জিএ/এসএস 

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়