logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ৮ কার্তিক ১৪২৬

মুক্তিযোদ্ধাদের বয়স নির্ধারণ নিয়ে হাইকোর্টের রায় বহাল

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৯ জুন ২০১৯, ২২:২৮
ফাইল ছবি
মুক্তিযোদ্ধাদের ন্যূনতম বয়স নির্ধারণ করে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংশোধিত পরিপত্র অবৈধ ঘোষণা করে হাইকোর্টের দেয়া আদেশে স্থগিতাদেশ দেননি আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত।

আজ বুধবার বিচারপতি মো. নূরুজ্জামান হাইকোর্টের রায়ের ওপর কোন স্থগিতাদেশ না দিয়ে আগামী ২৩ জুন শুনানির জন্য পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে পাঠিয়ে দেন। ফলে হাইকোর্টের দেওয়া রায় বহাল থাকলো।

আদালতে আবেদনের পক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। আর রিট আবেদনকারীর পক্ষে ছিলেন আইনজীবী এ বি এম আলতাফ হোসেন ও ব্যারিস্টার ওমর সাদত।

মুক্তিযোদ্ধাদের বয়স ন্যূনতম ১২ বছর ৬ মাস এবং ১৩ বছর নির্ধারণ নিয়ে করা পৃথক ১৫টি রিটের চূড়ান্ত শুনানি শেষে গত ১৯ মে হাইকোর্ট এ রায় ঘোষণা করেন।

ওই রায়ে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ট্রাস্ট্র আইন, ২০১৮ এর সংজ্ঞা সংক্রান্ত ২ ধারার ১১ উপধারা অবৈধ ঘোষণা করেন। এছাড়া রায় পাওয়ার ৬০ দিনের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানী পরিশোধ করতে নির্দেশ দেওয়া হয়।

আইনজীবী ওমর সাদাত বলেন, পরিপত্রে মুক্তিযোদ্ধাদের ন্যূনতম বয়স নির্ধারণ করা হয়েছিল, যার ধারাবাহিকতায় অনেক মুক্তিযোদ্ধার ভাতা আটকে গিয়েছিল। কিন্তু আদালত আজ তাঁদের (১৫ জন রিটকারীর) সেই বকেয়া ভাতা পরিশোধের নির্দেশ দিয়েছেন। হাইকোর্টে দেওয়া এই রায়টি গুরুত্বপূর্ণ। আদালত বলেন, মুক্তিযোদ্ধাদের সংজ্ঞা পরিবর্তনের কোনো সুযোগ নেই, এটি একেবারেই অপরিবর্তনীয়। তিনি বলেন, আদালত বলেছেন, মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়ে সংজ্ঞা দেওয়ার কিছু নেই। ঐতিহাসিক সাক্ষীর ভিত্তিতে কে মুক্তিযোদ্ধা আর কে মুক্তিযোদ্ধা না, তা নির্ধারণ হবে। মুক্তিযোদ্ধারা মুক্তিযোদ্ধাই। এখানে তর্কের কোনো অবকাশ নেই।

এমকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়