• ঢাকা সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬

রাজস্ব আদায় ও সুশাসন নিশ্চিত করাই বাজেটের বড় চ্যালেঞ্জ

সেলিম মালিক, আরটিভি অনলাইন
|  ১২ জুন ২০১৯, ১২:৫৫ | আপডেট : ১২ জুন ২০১৯, ১৩:০২
একদিকে বর্তমান সরকারের তৃতীয় মেয়াদের প্রথম বাজেট অন্যদিকে দেশের উন্নয়নে সপ্তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনার শেষ বাজেট। এই দুইয়ের নিরিখে কি ধরনের বাজেট প্রণয়ন করা উচিৎ? এমন প্রশ্নে আরটিভির সঙ্গে কথা বলেছেন দেশের বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদরা।

whirpool
অর্থনীতিবিদরা বলছেন, রাজস্ব আদায়ের প্রবৃদ্ধি ধরে রাখার পাশাপাশি বাজেটে সরকারকে জোর দিতে হবে, মানবসম্পদ উন্নয়ন, প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বৃদ্ধি ও সুশাসন নিশ্চিত করার ওপর। 

চলতি অর্থবছরের সামগ্রিক অর্থনীতির ভালো-মন্দের মিশ্রণকে সামনে রেখে আবারও বড় বাজেট দেয়ার পথে সরকার। এরই মধ্যে চূড়ান্ত হয়ে গেছে বাজেটের আকার পাঁচ লাখ ২৩ হাজার কোটি টাকা। যা মোট দেশজ উৎপাদন-জিডিপির ১৮ শতাংশের কিছু বেশি।

দেশকে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে নিতে যে সপ্তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা; চলতি বছর পার করছে তার শেষ অধ্যায়। লক্ষ্য আছে ২০৩০ ও ২০৪১ সালের মধ্যে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত উন্নত রাষ্ট্রের সুফল ভোগ করার।

তবে, এমন সব পরিকল্পনা বাস্তবায়নে প্রয়োজন বিশাল রাজস্ব। যা আদায়ে দক্ষতা ও প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা দুটিতে পিছিয়ে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)।

পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব শামসুল আলম আরটিভি অনলাইনকে বলেন, উন্নয়নের পথের সব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করে, বাস্তবসম্মত বাজেট দেয়ার পথে হাঁটছে সরকার।

আওয়ামী লীগ সরকারের টানা তৃতীয় মেয়াদ ও নতুন অর্থমন্ত্রীর প্রথম এ বাজেট ঘোষণা করা হবে আগামী ১৩ জুন।

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়