logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ এপ্রিল ২০২১, ৭ বৈশাখ ১৪২৮

করোনা রোধে মাঠে নেমেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত

করোনা রোধে মাঠে নেমেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) এলাকায় করোনাভাইরাস প্রতিরোধে প্রতিটি অঞ্চলে ভ্রাম্যমাণ আদালত মাঠে নেমেছে। করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পেতে মানুষকে সচেতনতার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের দিকনির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, ডিএসসিসির ১০টি অঞ্চলের নির্বাহী কর্মকর্তাদের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে। মূলত তাদের নেতৃত্বে করোনা রোধে ভ্র্যম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হচ্ছে।

সোমবার (০৫ এপ্রিল) রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় করোনাভাইরাস বিস্তার রোধে মাঠে নামে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। করোনাভাইরাস বিস্তার রোধে সরকার ঘোষিত "শর্ত সাপেক্ষে সার্বিক কার্যাবলি/চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরোপ" মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়নে ম্যাজিস্ট্রেট টিম মাঠে নেমেছে।

সরকার আজ থেকে সারাদেশে আটকাদেশ (লকডাউন) ঘোষণা করেছে। মাঠ পর্যায়ে তা বাস্তবায়নে ইতোমধ্যে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ও স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে সিটি করপোরেশনের ওপর কিছু দায়িত্ব অর্পণ করা হয়েছে। সেসব দায়িত্ব পালনে মাঠে নেমেছে সিটি করপোরেশন।

এর আগে গতকাল রোববার ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছিলেন, যেহেতু সিটি করপোরেশনের সংখ্যাগরিষ্ঠ কাজই অত্যাবশ্যকীয়, সুতরাং সিটি করপোরেশনের কাজ চলমান রাখতে হবে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আবু নাসের আরটিভি নিউজকে বলেন, ডিএসসিসির অঞ্চল ১০টি। মূলত এই অঞ্চলের নির্বাহী কর্মকর্তাদের ম্যাজিস্ট্রেটের ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে। ১০টি অঞ্চলে নির্বাহী কর্মকর্তাদের মধ্যে দুই জনের করোনা পজেটিভ হওয়ায় সেখানে অন্যত্র থেকে দুজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। প্রতিটি অঞ্চলে ভ্রাম্যমাণ আদালত তাদের নিয়মিত কাজ করছেন।

এফএ

RTV Drama
RTVPLUS