logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

জনসনের টিকা পেতে আলোচনা চলছে: স্বাস্থ্য সচিব

Talks are underway to get Johnson's vaccine: Health Secretary,
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আব্দুল মান্নান

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আব্দুল মান্নান বলেছেন, প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস প্রতিরোধে জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি এক ডোজের টিকা পেতে আলোচনা চলছে। টিকার জন্য জনসন অ্যান্ড জনসনের সঙ্গে কথা হয়েছে।

বিশ্ব শ্রবণ দিবস উপলক্ষে জাতীয় নাক-কান-গলা ইন্সটিটিউটে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বুধবার (০৩ মার্চ) সকালে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্য সচিব বলেন, টিকার জন্য জনসন অ্যান্ড জনসনের সঙ্গে কথা হয়েছে। তাদের টিকা আমাদের দেশে রাখার মতোই। তবে কোভ্যাক্স ফ্যাসিলিটি এই টিকাকে তাদের সঙ্গে যুক্ত করেনি। এটা এক্সক্লুসিভলি তাদের দেশে ব্যবহার করছে। সেটা আমরা কীভাবে আমদানি করব? এজন্যে আমরা আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছি। যদি কোনো সুযোগ আসে, নিশ্চয়ই আমরা এটা নিয়ে আসব। এতে করে এক ডোজ করে দিলে আমাদের সময় বাঁচবে। আর যদি সেটা না হয়, তাহলে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার যে টিকা আছে ওটাই চালিয়ে যাব।

মো. আব্দুল মান্নান আরও বলেন, আমাদের টিকার কোনো সংকট হবে না। এগুলো শেষ হতে না হতেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আরও তিন কোটি ডোজ টিকা ক্রয়ের নির্দেশ দিয়েছেন। সেগুলোও অক্সফোর্ডের টিকাই আনা হবে।

কোভ্যাক্সের টিকা কবে আসছে জানতে চাইলে তিনি আরও বলেন, তারা তো জানিয়েছে মার্চ মাসেই টিকা পাঠাবে। আমরাও আশা করছি এই সময়ের মধ্যেই পাব। তবে এখনও তারা আমাদেরকে নির্ধারিত কোনো তারিখ জানায়নি।

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের জুন মাস নাগাদ যুক্তরাষ্ট্রকে ১০ কোটি টিকার ডোজ দিতে সম্মত হয়েছে জনসন অ্যান্ড জনসন। যুক্তরাজ্য, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং কানাডাও এই টিকার জন্য চাহিদা জানিয়েছে। পাশাপাশি দরিদ্র দেশগুলোকে দেওয়ার জন্য যে কোভ্যাক্স প্রকল্প নেওয়া হয়েছে, সেই প্রকল্পে ৫০ কোটি টিকা কেনার চাহিদা দেওয়া হয়েছে।

পি

RTV Drama
RTVPLUS