smc
logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ১৫ কার্তিক ১৪২৭

করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু বেড়েছে

  আরটিভি নিউজ

|  ১৭ অক্টোবর ২০২০, ১৬:১৫ | আপডেট : ১৭ অক্টোবর ২০২০, ১৮:২৪
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু বেড়েছে
ফাইল ছবি
দেশে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) আক্রান্ত আরও ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে, নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ২০৯ জন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত মোট মৃত্যু ৫ হাজার ৬৪৬ জন, শনাক্ত ৩ লাখ ৮৭ হাজার ২৯৫ জন। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনাবিষয়ক নিয়মিত বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, চব্বিশ ঘণ্টায় মৃত ২৩ জনের মধ্যে পুরুষ ১৮, আর নারী ৫ জন। আর গতকাল মৃত্যুর সংখ্যা ছিল ১৫ জন। এখন পর্যন্ত পুরুষ চার হাজার ৩৪৫ জন, আর নারী এক হাজার ৩০১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মৃতদের মধ্যে প্রথম অবস্থানে ষার্টোধ্ব, দ্বিতীয় ৫১ থেকে ৬০ বছর, তৃতীয় ৩১ থেকে ৪০ বছর, চতুর্থ ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে, পঞ্চম ১১ থেকে ২০ বছর এবং পঞ্চম অবস্থানে রয়েছে ১০ বছরের নিচে বয়সের শিশুরা। শতকরা হিসেবে পুরুষ ৭৬ দশমিক ৯৬ শতাংশ এবং নারী ২৩ দশমিক ০৪ শতাংশ। 

দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হিসেবে আজ ২২৪ তম দিন। এই দিনে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত করোনাবিষয়ক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, গত চব্বিশ ঘণ্টায় ১১০টি ল্যাবে করোনার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১১ হাজার ১২টি। আর নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১১  হাজার ৫৭৩টি। এখন পর্যন্ত মোট করোনা পরীক্ষা হয়েছে ২১ লাখ ৫১ হাজার ৭০২টি। আর সুস্থ্য হয়েছেন এক হাজার ৫৬০ জন। মোট সুস্থ্য হয়েছেন ৩ লাখ ২ হাজার ২৯৮ জন। 

২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত শনাক্তের হার ১০ দশমিক ৪৫ শতাংশ এবং এপর্যন্ত শনাক্তের হার ১৮ শতাংশ। রোগী শনাক্তের তুলনায় সুস্থতার হার ৭৮ দশমিক ০৫ এবং মৃত্যুর হার এক দশমিক ৪৬ শতাংশ।

পাঁচ হাজার ৬৪৬ জনের মধ্যে ২ হাজার ৬৩১ জন ঢাকা বিভাগের, ১ হাজার ৭৫ জন চট্টগ্রাম বিভাগের, ৩৪৫ জন রাজশাহী বিভাগের, ৪৩৫ জন খুলনা বিভাগের, ১৮৭ জন বরিশাল বিভাগের, ২৩১ জন সিলেট বিভাগের, ২৩৭ জন রংপুর বিভাগের এবং ১১০ জন ময়মনসিংহ বিভাগের বাসিন্দা ছিলেন।

বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে দেখা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত ২৩ জনের মধ্যে শূন্য থেকে ১০ বছরের একজন, ২১ থেকে ৩০ বছরের একজন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের দুইজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের চারজন এবং ১৫ জন।

বিভাগ অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত ২৩ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ১৪ জন, চট্টগ্রামে চারজন, খুলনায় একজন, বরিশালে দুইজন এবং রংপুরে দুইজন রয়েছেন। 

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বে মোট মৃতের সংখ্যা ১১ লাখ ১০ হাজার ১৯৮। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে শুধু ভারত ও পাকিস্তানে মৃত্যুর সংখ্যা বাংলাদেশের চেয়ে বেশি। বৈশ্বিক তালিকায় তৃতীয় স্থানে থাকা ভারতে মোট মৃত্যু ১ লাখ ১৩ হাজার ছাড়িয়ে গেছে, পাকিস্তানে মৃত্যু হয়েছে সাড়ে ৬ হাজারের বেশি মানুষের।

বিশ্বে এ পর্যন্ত করোনা শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ৯৬ লাখ ছাড়িয়েছে। মোট সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৯৬ লাখের বেশি। জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় বিশ্বে শনাক্ত রোগীর সংখ্যায় দিক থেকে ১৫তম স্থানে আছে বাংলাদেশ, আর মৃতের সংখ্যায় রয়েছে ২৯তম অবস্থানে।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম রোগী শনাক্ত হয় ৮ মার্চ, এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ প্রথম মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদফতর। এর পর থেকে দেশে করোনা সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ে। প্রতিদিন হাজারের ওপরে করোনা রোগী শনাক্ত হচ্ছেন আর দৈনিক কমবেশি ২০ জন মানুষ মারা যাচ্ছে।

এফএ/এসএস
 

RTVPLUS

সংশ্লিষ্ট সংবাদ : করোনাভাইরাস

আরও
bangal
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ৪০৩০৭৯ ৩১৯৭৩৩ ৫৮৬১
বিশ্ব ৪,৪৩,৫৭,৬৭১ ৩,২৫,০৫,১৫৫ ১১,৭৩,৮০৮
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • বাংলাদেশ এর সর্বশেষ
  • বাংলাদেশ এর পাঠক প্রিয়