• ঢাকা শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫

এশিয়ার সেরা হওয়ার প্রত্যাশা রাহীর

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৭ আগস্ট ২০১৮, ১৯:৫৯ | আপডেট : ২৭ আগস্ট ২০১৮, ২০:২৮
২০১২ সালের এশিয়া কাপের ফাইনালে ঘরের মাঠে পাকিস্তানের বিপক্ষে ২ রানের পরাজয়ের কথা কখনও ভোলার নয়। সেবারই প্রথমবারের মতো এশিয়া কাপের ফাইনালে উঠা। এরপর ২০১৪ সালেও বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হয় এশিয়ান ক্রিকেটের সর্বোচ্চ এই আসর। সেবার আশানুরূপ কিছু না করতে পারলেও ২০১৬ সালের এশিয়া কাপের ফাইনালে খেলে স্বাগতিক বাংলাদেশ। তবে দুর্ভাগ্য, এবার ৮ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে হারতে হয় ভারতের কাছে। দুইবার শিরোপার এত কাছে গিয়েও শিরোপা না পাওয়ার ব্যর্থতা নিশ্চয়ই এবার শক্তিতে রূপ নিবে টাইগারদের!

প্রস্তুতিতে টাইগররা রাখতে চান না কোনও ঘাটতি। সংযুক্ত আরব আমিরাতে এবারের এশিয়া কাপ শুরুর ২০ দিন আগেই মাঠে নেমে পড়েছেন আটঘাট বেঁধে। আজ সোমবার সকালে প্রাথমিক দলে ডাক পাওয়া সদস্যরা মিরপুরের একাডেমি মাঠে জমা দিয়েছেন রিপোর্ট। এরপরই শুরু হয় প্রস্তুতির প্রথম ধাপ।

প্রথম দিনের প্রস্তুতি পর্ব শেষে গণমাধ্যমের সামনে আসেন জাতীয় দলের উদীয়মান পেসার আবু জায়েদ রাহী। কথা বলেন নিজেকে নিয়ে, দল ও এশিয়া কাপ নিয়ে দলের ভাবনা নিয়ে।

রাহী থিতু হতে চান ওয়ানডে দলে। সম্প্রতি ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে খুব একটা খারাপও করেননি এই তরুণ পেসার। নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে চান টেস্ট খেলোয়াড় হিসেবে।
-------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচের টিকিট না পেয়ে ফুটবল ভক্তদের ক্ষোভ
-------------------------------------------------------

এশিয়া কাপ নিয়ে কি পরিকল্পনা করছে দল। এ নিয়ে রাহী বলেন, আজকের প্রস্তুতি পর্ব শেষে সবাইকে নিয়ে মিটিং হয়েছে। সেখানে মাশরাফি ভাই বলেন, আমরা এখানে শুধুই অংশগ্রহণ করতে যাচ্ছিনা। সবার মাঝে বিশ্বাস থাকতে হবে যেন চ্যাম্পিয়ন হতে পারি। সেভাবেই খেলতে হবে সবাইকে।

রাহী আশা করেন, গত ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে দুটি সিরিজে জয় পাওয়া এশিয়া কাপে অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে। এখানেও ২৫ বছর বয়সী এই পেসার টেনে আনেন ওয়ানডে অধিনায়কের কথা।

তিনি বলেন, মাশরাফি ভাই দলে যোগ দেয়ার পরই গোটা দলের আত্মবিশ্বাসটা বেড়ে যায়। ওই সিরিজই উনার সাথে আমার প্রথমবার মাঠে নামা। উনি আমাদের বলেছিলেন, শুধু বিশ্বাস রাখ তোরা পারবি, তাহলেই হবে।

আরও পড়ুন : 

 

এমআর/ওয়াই

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়