• ঢাকা শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫

ধর্মঘটের হুমকির মুখে লা লিগা

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ২৩ আগস্ট ২০১৮, ১৭:১৯ | আপডেট : ২৩ আগস্ট ২০১৮, ১৭:৪৯
যুক্তরাষ্ট্রের স্পোর্টস ও বিনোদন ভিত্তিক কোম্পানী রিলেভেন্টের সঙ্গে লা লিগা কর্তৃপক্ষ ১৫ বছরের চুক্তি ঘোষণা করেছে এটি পুরনো খবর। কিন্তু নতুন বিষয়টি হচ্ছে এ চুক্তিকে কেন্দ্র করে ধর্মঘটের হুমকি দিয়েছে স্প্যানিশ ফুটবল প্লেয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন। 

ঘটনার সূত্রপাত রিলেভেন্টের সঙ্গে চুক্তিকে কেন্দ্র করে। কারণ এ চুক্তির অন্যতম শর্ত হচ্ছে আগামী ১৫ বছর ধরে স্পেনের বাইরে অর্থাৎ যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে কিছু ম্যাচ খেলতে হবে লা লিগার দলগুলোকে। 

যে ম্যাচের নতুন নামকরণ হবে ‘লা লিগা উত্তর আমেরিকা’। ২০ দলের অংশগ্রহণে এই লিগের সেই একমাত্র ম্যাচ কোন দুটি দল খেলবে, সেটা এখনো শতভাগ নিশ্চিত নয়। তবে চুক্তির শর্ত অনুযায়ী সেই ম্যাচটা হবে লা লিগার দুই জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনার। নতুন করে শোনা যাচ্ছে, অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের নামও। ম্যাচ হবে মায়ামিতে। আর লা লিগা কর্তৃপক্ষের এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন স্পেনের ফুটবলাররা। 

-------------------------------------------------------
আরও পড়ুন :কোহলির পেছনে সৌরভ সামনে ধোনি
-------------------------------------------------------

রিলেভেন্ট হলো যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা ভিত্তিক একটা সংস্থা। যাদের লক্ষ্য-উদ্দেশ্য যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার ফুটবল উন্নয়নে কাজ করা। তো সেই উদ্দেশ্যেই তারা গত পরশু লা লিগার সঙ্গে ঐতিহাসিক একটা চুক্তি সম্পাদন করে।

এএফই-র বেঁকে বসার কারণটাও স্পষ্ট। যুক্তরাষ্ট্রে অফিসিয়াল লিগ ম্যাচ আয়োজনের মাধ্যমে মোটা অঙ্কের টাকা কামাবে লা লিগা। কিন্তু চুক্তি অনুযায়ী আয়ের সেই পুরো টাকাটাই যাবে লা লিগার তহবিলে। খেলোয়াড়দের কানাকড়িও দেয়া হবে না! অথচ ম্যাচটা কিন্তু শেষ পর্যন্ত খেলতে হবে ফুটবলারদেরই।

বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে এই বিরোধিতার কথা জানিয়েছে দেশটির ফুটবল প্লেয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন। রিয়াল মাদ্রিদ অধিনায়ক সার্জিও রামোস, বার্সেলোনা মিডফিল্ডার সার্জিও বুস্কেটসও ছিলেন এই সংবাদ সম্মেলনে। এরকম চুক্তি থেকে সরে আসার জন্য লা লিগা কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন জানিয়েছেন তারা। শেষ পর্যন্ত কাজ না হলে ধর্মঘটে যাবার হুমকিও দিয়েছে স্প্যানিশ ফুটবল প্লেয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন।

ফুটবল প্লেয়ার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি দাভিদ আগোনজো বলেন, এটা পরিস্কার যে স্পেনের বাইরে খেলার যে একতরফা সিদ্ধান্ত হয়েছে ফুটবলাররা তার বিপক্ষে। এই সিদ্ধান্তে কোনও কমনসেন্স কাজ করেনি। এ সিদ্ধান্তের ফলে ফুটবলার, রেফারি, সাপোর্টার সবাই ক্ষতিগ্রস্ত হবে। আমরা খুব শিগগিরি লা লিগা কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলবো। সমাধান না হওয়া পর্যন্ত আমরা চেষ্টা করবো। প্রয়োজন পড়লে ধর্মঘটে যেতে হবে।

ফুটবলারদের ক্লান্তি নিয়ে বেশি উদ্বিগ্ন সংগঠনটি। পাশাপাশি ক্লাব এবং সমর্থকদের কথাও চিন্তা করছেন সংগঠনের নেতারা। 

সভাপতি দাভিদ আগোনজো আরও বলেন, এটি নির্দিষ্ট কোনও ক্লাবের সমস্যা নয়। একটি দল সমর্থক ছাড়া যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে খেলবে এটা কি ভাবা যায়। এর কোনও মানেই হয় না। আমার বিশ্বাস সমর্থকরাও এটা সমর্থন করবে না। আর ১৫ বছরের চুক্তি কেনও হবে। তারা ফুটবলের উন্নতির কথা বলে, অথচ এরকম হঠকারী সিদ্ধান্ত নিলেন। এটা কোনভাবেই মানা যায় না।

ক্লাবের ওপর অর্থনৈতিক নিয়ন্ত্রণ নিয়েও প্রতিবাদ জানিয়েছেন ফুটবলাররা। রোববারের মধ্যে সমাধান না হলে সোমবারের ম্যাচ নাও হতে পারে লা লিগায়।

আরও পড়ুন :

এএ/ওয়াই

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়