• ঢাকা সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৯ আশ্বিন ১৪২৫

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১৭৪ রানে অলআউট পাকিস্তান

স্পোর্টস ডেস্ক
|  ০১ জুন ২০১৮, ২২:৩৫ | আপডেট : ০১ জুন ২০১৮, ২২:৫৪
ইংল্যান্ডের মাটিতে প্রথম ইংনিসে ব্যাট করতে নেমে ১৭৪ রানেই সব উইকেট হারিয়েছে পাকিস্তান। শুক্রবার দ্বিতীয় টেস্টের প্রথমদিনে মাঠে নেমেই হোঁচট খেয়েছে তারা।

১৯৯৬ সালে শেষবার পাকিস্তান টেস্ট সিরিজ জিতেছিল। এবার দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজে প্রথমটিতে জয় পেয়ে ২২ বছর পর ইংলিশদের মাটিতে তাদের বিপক্ষে সিরিজ জয়ের স্বপ্ন দেখছে সফরকারী পাকিস্তান।

তিন পেসার জেমস অ্যান্ডারসন, স্টুয়ার্ট ব্রড আর ক্রিস ওকসের সংঘবদ্ধ আক্রমণে রীতিমতো দিশেহারা পাকিস্তানি ব্যাটসম্যানরা। সঙ্গে অভিষিক্ত টম কুরানও একটু অবদান রাখলেন। হেডিংলি টেস্টে প্রথম ইনিংসে পাকিস্তানকে এই পেস দিয়েই ঘায়েল করে দিয়েছে ইংল্যান্ড।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : ২২ বছরের আক্ষেপ ঘুচাতে পারবে পাকিস্তান?
--------------------------------------------------------

হেডিংলিতে টস জিতে শুরুতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। কিন্তু ব্যাটিংয়ে নেমেই হোঁচট খায় তারা। দলীয় রান যোগ হওয়ার আগেই স্টুয়ার্ট ব্রডের বলে জো রুটের হাতে ক্যাচ দিয়ে শূন্য হাতে ফিরে যান ইমাম-উল-হক। এরপর দলীয় ১৭ রানে আরেক ওপেনার আজহার আলীকে এলবিডব্লিউতে সাজঘরে পাঠান ব্রড।

তৃতীয় উইকেট জুটিতে হারিস সোহাইল ও আসাদ শফীক হাল ধরার কিছুটা চেষ্টা করলেও, দলীয় ৪৯ রানে ব্যক্তিগত ২৮ রানে ক্রিস ওকসের বলে ডেভিড মালানের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন সোহাইল। এরপর ওকসের বলে অ্যালিস্টার কুকের হাতে ক্যাচ দিয়ে দলীয় ৬২ রানে ব্যক্তিগত ২৭ রান নিয়ে ফেরেন আসাদ শফিক। এরপর অধিনায়ক শরফরাজ আহমেদ (১৪), উসমান সালাহউদ্দিন (৪) এবং ফাহিম আশরাফ শূন্য রানে আউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন। এরপর দলীয় ৭৯ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে পাকিস্তান।

এরপর মোহাম্মদ আমির ও হাসান আলীকে সঙ্গে নিয়ে দলের হাল ধরেন শাদাব খান। তবে শেষদিকে আমির ১৩ রান এবং হাসান আলী ২৪ রান করে আউট হলে দলীয় ১৭৪ রানে টম কুরানের বলে জেনিংসের হাতে ক্যাচ দিয়ে ব্যক্তিগত ৫৬ রানে সাজঘরে ফেরেন শাদাব খান। আর তাতেই থেমে যায় পাকিস্তানের ইনিংস।

ইংল্যান্ডের জেমস অ্যান্ডারসন, স্টুয়ার্ট ব্রড ও ক্রিস ওকস ৩টি করে উইকেট নেন। আর টম কুরান নেন ১টি উইকেট।

আরও পড়ুন : 

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়