• ঢাকা শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫

টি-টোয়েন্টিতে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ২০:৩২ | আপডেট : ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ২০:৫৫
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে বাংলাদেশ দল। সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে ৭৫ রানের বড় জয় পেয়েছে লঙ্কানরা। ২১১ রানের বিশাল টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৮ ওভার ৪ বলে ১৩৫ রানে গুটিয়ে যায় মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের দল। 

আজ (রোববার) সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে সফরকারীদের ব্যাট করতে পাঠান অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ২১০ রান সংগ্রহ করে বাংলাদেশের সাবেক কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহের শিষ্যরা।

জবাবে বেশ ভালোই শুরু করেছিলেন চোট কাটিয়ে দলে ফেরা তামিম ইকবাল। তবে দ্বিতীয় ওভারেই ফিরে যান সৌম্য সরকার। ৪ বলে কোনো রান না করেই আকিলা ধনঞ্জয়ার বলে আউট হন এই ওপেনার। 

তৃতীয় ওভারের মাঝে শেহান মাদুশনকার প্রথম শিকার হন ৩ বলে ৬ রান করা মুশফিকুর রহিম। ওই ওভারের শেষ বলে ফের উইকেটের পতন। এরপর মাঠ ছাড়লেন দীর্ঘদিন পর দলে সুযোগ পাওয়া মোহাম্মদ মিথুন।

দলীয় ৫৯ রানে অভিষিক্ত আমিলা আপোনসোর বলে আকিলা ধনঞ্জয়ার হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান তামিম। ২৩ বলে ২৯ রান করেন এই বাম-হাতি ওপেনার।

নবম ওভারের চতুর্থ বলে এলবিডব্লিউ ফাঁদে পড়েন আরিফুল হক। ৩ বলে ২ রান করে জীবন মেন্ডিসের শিকার হন ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ম্যাচ খেলা এই ব্যাটসম্যান।

শেষ দিকে মোহাম্মদ সাইফুদ্দিনকে নিয়ে ৪২ রানের পার্টনারশিপ গড়েন মাহমুদুল্লাহ। তবে ১৫তম ওভারের দ্বিতীয় বলে দুর্ভাগ্যবশত রান আউট হন এই সিনিয়র ব্যাটসম্যান।
মাঠ ছাড়ার আগে ৩১ বলে ৪১ রান করে মাঠ ছাড়েন অধিনায়ক।

৩ বল পর ফিরে যান ২০ রান করা সাইফুদ্দিন। বদলি ফিল্ডারের হাতে উদানার বলে ফিরে যান এই অলরাউন্ডার।

দলীয় ১৩২ রানে ১১ বলে ১১ রান করা অভিষিক্ত মেহেদি হাসান আউট হন। দাসুন শানাকার বলে ক্যাচটি ধরেন ইসুরু উদানা।

১৯তম ওভারের প্রথম বলেই আউট হন মুস্তাফিজুর। ৮ বলে ৮ রান করে দানুশকা গুনাথিলাকা ওভারে বোল্ড হন তিনি। ওভারের চতুর্থ বলে স্ট্যাম্পিং হন আবু জায়েদ রাহি। ৩ বলে ২ রান করেন অভিষিক্ত এই পেসার। এতেই গুটিয়ে যায় বাংলাদেশ দল

শেষ পর্যন্ত ১ বলে ১ রান করে অপরাজিত ছিলেন তিনি।

এর আগে লঙ্কানদের হয়ে ৪২ বলে ৭০ রান করেন কুশল মেন্ডিস। ৩৭ বলে ৪২ রান করেন গুনাথিলাকা।

অন্যদিকে বাংলাদেশের হয়ে ১ করে উইকেট নেন সৌম্য, মুস্তাফিজুর, সাইফুদ্দিন ও অভিষিক্ত রাহি।

দুই ম্যাচে ১২৩ রান করে প্লেয়ার অব দ্য ম্যাচ ও প্লেয়ার অব দ্য সিরিজ হয়েছেন কুশল মেন্ডিস।

শ্রীলঙ্কা একাদশ:

উপল থারাঙ্গা, দানুশকা গুনাথিলাকা, কুশল মেন্ডিস, দিনেশ চান্দিমাল (অধিনায়ক), জীবন মেন্ডিস, থিসারা পেরেরা, দাসুন শানাকা, আমিলা আপোনসো, আকিলা ধনঞ্জয়া, শেহান মাধুশানকা ও ইসুরু উদানা।

বাংলাদেশ একাদশ:

তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ মিথুন, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ (অধিনায়ক), মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, মেহেদী হাসান, আরিফুল হক, নাজমুল হাসান অপু, মুস্তাফিজুর রহমান ও আবু জায়েদ রাহী।

আরও পড়ুন: 

ওয়াই/জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়