• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

ওযু করার পর আয়না দেখলে ওযু নষ্ট হবে কী?

অনলাইন ডেস্ক
|  ২৩ মার্চ ২০১৮, ১১:১৬ | আপডেট : ২৩ মার্চ ২০১৮, ১২:১৭
আরটিভিতে সরাসরি প্রচারিত হয় ইসলাম নিয়ে প্রশ্নোত্তরমূলক বিশেষ অনুষ্ঠান ‘শরিফ মেটাল প্রশ্ন করুন’। এ অনুষ্ঠানে কুরআন ও হাদিসের আলোকে দর্শক-শ্রোতাদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেয়া হয়। এবারের পর্বে উত্তর দিয়েছেন জাতীয় মসজিদ বায়তুল মুকাররমের সিনিয়র পেশ ইমাম ও ভারপ্রাপ্ত খতিব মাওলানা মুফতি মহিব্বুল্লাহিল বাকী।  

প্রশ্ন: ওযু করার পর কেউ আয়না দেখলে তার ওযু নষ্ট হবে কীনা?

উত্তর: ওযু ভাঙার কারণের মধ্যে এটা নাই। বরং আয়না দেখার একটা নির্ধারিত দোয়া আছে, সেই দুয়াটি পড়লে বরং সওয়াব পাওয়া যায়। ওযু করার পর আয়না দেখলে ওযু নষ্ট হয় না, কোনো কিছু খেলেও ওযু নষ্ট হয় না। তবে এমন কিছু খাওয়া যাবে না যেটা খেলে নামাজের মধ্যে স্বাদ আসতে থাকবে।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন: আলেম সমাজ কখনই ইংরেজি শিক্ষার বিরোধিতা করেনি
--------------------------------------------------------

প্রশ্ন: দাড়ি রাখার কি সুন্নাহ না ওয়াজিব? এ সম্পর্কে আল্লাহর রাসূলের বক্তব্য ও হুকুম কি?

উত্তর: দাড়ি রাখা হল সুন্নাতে মুয়াক্কাদা, যেটা ওয়াজিবের কাছাকাছি। রাসুল (স) কিন্তু নিজে কোনো কিছু সম্পর্কে বলে যান নাই যে এটা সুন্নাত, এটা ওয়াজিব। নবী কারীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, তোমরা গোফ কাটো, ছাটো আর দাড়ি লম্বা কর। দাড়ি লম্বা করতে আল্লাহ রসুল আদেশ দিয়েছেন। এই আদেশের ব্যাখ্যা করতে গিয়ে আমরা বললাম, এটা যদি ফরয করা হয় তাহলে নামাযের মত গুরুত্বপূর্ণ হয়ে যাবে। তাই এটাকে ওয়াজিবের কাছাকাছি অর্থাৎ সুন্নাতে মুয়াক্কাদা করা হয়েছে।

প্রশ্ন: চন্দ্রগ্রহণ এবং সূর্য্যগ্রহণের সময় আমাদের বিশেষ কোনো আমল আছে কীনা?

উত্তর: সূর্য্যগ্রহণ ও চন্দ্রগ্রহণের সময় নির্ধারিত দোয়া, নামাজ, মাসায়েলা আছে।  এসময় গর্ভবতী মায়েরা কাটাকাটির কাজ করলে যে শিশু বিকলাঙ্গ হবে এটা ঠিক নয়।

আরও পড়ুন:

কেএইচ/জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়