• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

বিনা পয়সায় তাড়ান ব্রণ

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ১৬ মার্চ ২০১৭, ১৫:২০ | আপডেট : ১৬ মার্চ ২০১৭, ১৬:৫৭
ব্রণ; শব্দটি শুনলেই কেমন জানি গা’য়ে শিহরণ জেগে উঠে। এটি কেবল মেয়েদের জন্য নয়, ছেলেদের জন্যও মারাত্মক দুঃশ্চিন্তার বিষয়। অপ্রাপ্ত বয়সে ছেলে-মেয়ে উভয়ের মুখে এটি দেখা যেতে পারে। এর সংক্রমণ হলে চেহারার সৌন্দর্যহানি ঘটে। ফলে মেজাজ নষ্ট হয় এবং আত্মবিশ্বাস কমে যায়। অনেকে অফিসে বা পার্টিতে যেতে লজ্জাবোধ করেন। এমন পরিস্থিতিতে ব্রণের দুঃসহ যাতনা থেকে পরিত্রাণ পেতে আমরা কতো কিছুই না করি। কিন্তু কিছুতেই কিছু হচ্ছে না। তবে এ নিয়ে আর চিন্তা নয়, দৈনন্দিন জীবনে চলার পথে কিছু টিপস ও নিয়ম মেনে চললেই হবে।

১. ঘনঘন মুখ ধৌত করুন :  ব্রণ থেকে রক্ষা পাবার প্রথম ও সবচে’ সহজ উপায় হলো দিনে কমপক্ষে ৩-৪ বার মুখ ধোয়া। এটি ত্বক পরিস্কার রাখে। ত্বক আর্দ্র রাখতেও এর জুড়িমেলাভার।

২. প্রচুর পানি পান করুন : অনেক গবেষণায় দেখা গেছে, শরীরের রোগ প্রতিরোধের জন্য সবচে’ উপকারি প্রাকৃতিক উপাদান পানি। এটি কেবল শরীরে শক্তি যোগায় না, পাশাপাশি বর্জ্য বের করে দেয়। ফলে ত্বক জ্বালাপোড়া করে না। খোসপাঁচড়ার হাত থেকেও রক্ষা পাওয়া যায়।

৩. ব্রণ হলে টুথপেস্ট ব্যবহার করুন : ব্রণের হাত থেকে রক্ষা পেতে যতোগুলো জনপ্রিয় উপায় রয়েছে, সেগুলোর মধ্যে অন্যতম টুথপেস্ট। ব্রণ হলে এতে টুথপেস্ট ব্যবহার করুন। এটি হাইড্রোজেন পার-অক্সাইড ধারণ করে। যা ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে। ফলে ব্রণ থেকে পরিত্রাণ পাওয়া যায়।

৪. লেবুর রস ব্যবহার করুন:  ব্রণ থেকে রক্ষা পাবার আরেকটি ফলপ্রসূ উপায় হচ্ছে লেবুর রস ব্যবহার। এটি ত্বকে ব্যবহার করলে ক্ষুদ্র জীবাণু ধ্বংস হয়ে যায়। জ্বালাপোড়ার হাত থেকেও রক্ষা পাওয়া যায়।

৫. পুদিনার নির্যাস ব্যবহার করুন : পুদিনায় প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে। এছাড়া এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ও অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান। পুদিনার নির্যাস দিয়ে ব্রণের চারপাশ ধৌত করলে ভালো উপকার পাওয়া যায়।

৬. টমেটো ব্যবহার করুন : ব্রণ সংক্রমিত এলাকায় টমেটোর রস ব্যবহার করলে ভালো উপকার পাওয়া যায়। এটি মুখ থেকে অতিরিক্ত তেল দূর করে।ফলে ত্বক পরিস্কার ও তেলমুক্ত থাকে।

৭. ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার করুন : ব্রণ থেকে পরিত্রাণ পেতে সবচে’ কার্যকরী উপায় হচ্ছে ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার। এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ও অ্যামিনো এসিড। যা ব্রণ দূর করে ত্বকের নতুন কোষ গজাতে সাহায্য করে। ত্বক আর্দ্র রাখতেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

৮. রসুন ব্যবহার করুন: রসুনে রয়েছে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল, অ্যান্টি-ফাঙ্গাল ও অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট উপাদান।  ব্রণ দূরে প্রাথমিক চিকিৎসা হিসেবে এটি ব্যবহার করা যায়। এতে বিদ্যমান সালফার ব্রণ দূর করতে কার্যকরী ভূমিকা রাখে। এছাড়া ত্বকের লাল ও উচ্ছ্বিষ্ট দাগ দূর করতেও সাহায্য করে।

ডিএইচ        

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়