আল-আকসার সব দরজা বন্ধ করে দিয়েছে ইসরায়েল

প্রকাশ | ১৮ আগস্ট ২০১৮, ১৭:৫৪ | আপডেট: ১৮ আগস্ট ২০১৮, ১৮:০১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন

জেরুজালেমের হারাম-আল-শরিফে অবস্থিত আল-আকসা মসজিদের সব দরজা বন্ধ করে দিয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। গতকাল শুক্রবার (১৭ আগস্ট) ওল্ড সিটিতে এক ফিলিস্তিনি ইসরায়েলি পুলিশদের একটি দলকে ছুরিকাঘাত করার চেষ্টা চালানোর পর থেকে এই পদক্ষেপ নিয়েছে ইসরায়েলি বাহিনী। খবর আল-জাজিরা, ফিলিস্তিন নিউজ নেটওয়ার্ক।

আল-জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইসরায়েলি পুলিশ ফিলিস্তিনিদের আল-আকসা মসজিদে শুক্রবার রাতে এশার নামাজও আদায় করার সুযোগ দেয়নি। নামাজিরা ঐতিহ্যবাহী এ মসজিদটির প্রধান ফটক ‘বাব-আল-আসবাত’ এর সামনে জড়ো হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। দখলদার পুলিশ জনসাধারণকে সরাতে গ্রেনেডও ব্যবহার করেছে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়।

এদিকে ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ইসরায়েলি কর্তৃপক্ষের ফটক বন্ধ রাখার কোনও অধিকার নেই। খুব তাড়াতাড়ি দরজাগুলো খুলে দেয়ার দাবি জানানো হয়েছে।

ফিলিস্তিন নিউজ নেটওয়ার্কের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হামলাকারী ফিলিস্তিনির নাম আহমদ মাহমুদ। ৩০ বছরের আহমদ উম আল-ফাহাম শহরের বাসিন্দা। তাকে ঘটনাস্থলেই গুলি করে হত্যা করা হয়। 

ফিলিস্তিনের স্থানীয় গণমাধ্যম জানায়, ঘটনার পর ইসরায়েলি বাহিনী বলপ্রয়োগ করে মসজিদ থেকে প্রার্থনাকারীদের বের করে দেয় এবং জনসাধারণের জন্য ওল্ড সিটির প্রবেশদ্বার বন্ধ করে দেয়।

ইসরায়েলি বাহিনীর এই পদক্ষেপের প্রতিক্রিয়ায় শুক্রবার প্রবেশদ্বারের বাইরে আসরের নামাজ আদায় করেন কয়েকশ ফিলিস্তিনি।


আরও পড়ুন :

 

এপি/পি