মানবাধিকার বিতর্ক

এবার টরেন্টোর সঙ্গে ফ্লাইট স্থগিত সৌদির

প্রকাশ | ০৭ আগস্ট ২০১৮, ০৯:৪৫ | আপডেট: ০৭ আগস্ট ২০১৮, ০৯:৫৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
ফাইল ছবি

আটক থাকা সব নাগরিক ও নারী অধিকারকর্মীকে মুক্তি দিতে রিয়াদের প্রতি আহ্বান জানানোর পর কানাডার টরেন্টোয় সরাসরি ফ্লাইট স্থগিত করেছে সৌদি আরব। এর আগে মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটির ‘আভ্যন্তরীণ’ ইস্যুতে হস্তক্ষেপের অভিযোগে কানাডার সঙ্গে সব ধরনের বাণিজ্য ও বিনিয়োগ স্থগিত করাসহ কানাডীয় রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কার করে রিয়াদ। খবর বিবিসির।

সৌদি আরবের এ ধরনের কঠোর পদক্ষেপের জবাবে কানাডা বলেছে, তারা ‘মানবাধিকারের সমর্থনে কথা বলা অব্যাহত’ রাখবে।

সাম্প্রতিক মাসগুলো সৌদি কর্তৃপক্ষ বেশ কয়েকজন অধিকারকর্মীকে আটক করে। তাদের মধ্যে রয়েছেন কারাগারে থাকা সুপরিচিত ব্লগার রাইফ বাদাউয়ির বোন সৌদি-মার্কিন অধিকারকর্মী সামার বাদাউয়ি।

-------------------------------------------------------------------------------------
আরও পড়ুন :  নিষেধাজ্ঞার ছায়ার মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনা নয়: রুহানি
-------------------------------------------------------------------------------------

কানাডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ক্রিস্টিয়া ফ্রিল্যান্ড বলেছেন, কূটনীতিক বহিষ্কারের ঘটনায় তিনি ‘গভীরভাবে উদ্বিগ্ন’। তবে তিনি বলেছেন, কানাডা সব সময় নারীর অধিকার এবং বিশ্বজুড়ে বাক স্বাধীনতা রক্ষায় সমর্থন অব্যাহত রাখবে।

ফ্রিল্যান্ড বলেন, আমরা এই মূল্যবোধের প্রসারে কখনও দ্বিধান্বিত হবো না এবং আমরা বিশ্বাস করি এ ধরনের আলোচনা আন্তর্জাতিক কূটনীতির জন্য খুবই জরুরি।

এর আগে সৌদির পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দেল আল-জুবেইর এক টুইটে জানিয়েছিলেন, ‘বিভ্রান্তিকর তথ্যের’ ভিত্তিতে কানাডা এ ধরনের বিবৃতি দিচ্ছে। তিনি আরও বলেন, সৌদি আইনেই তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং তারা আইনি সুরক্ষাও পাবেন।

এদিকে শীর্ষস্থানীয় সৌদি নারী অধিকারকর্মী মানাল আল-শরিফ মানবাধিকার ইস্যুতে ‘কথা বলায়’ কানাডাকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। এসময় তিনি অন্যান্য পশ্চিমা দেশগুলোকেও একই ইস্যুতে সরব হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন :  

এ/জেএইচ