• ঢাকা সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৯ আশ্বিন ১৪২৫

থাই গুহা থেকে ৬ কিশোর ফুটবলারকে উদ্ধার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ০৮ জুলাই ২০১৮, ১৮:২৩ | আপডেট : ০৮ জুলাই ২০১৮, ১৯:৩৭
থাইল্যান্ডের উত্তরাঞ্চলে গুহায় প্রায় দুই সপ্তাহ ধরে আটকে থাকা ১২ কিশোর ফুটবলার ও তাদের কোচকে উদ্ধারে অভিযান শুরু হয়েছে। এরই মধ্যে ছয় কিশোর ফুটবলারকে উদ্ধার করা হয়েছে। উদ্ধারকারী দল স্থানীয় সময় সকাল দশটায় গুহায় প্রবেশ করে বলে ঘটনাস্থলেই এক সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন একজন সরকারি কর্মকর্তা। খবর স্কাই নিউজ, এক্সপ্রেস ডট ইউকে, ব্যাংকক পোস্ট, মেট্রো। 

স্থানীয় গণমাধ্যম ব্যাংকক পোস্ট বলছে, অভিযানের প্রথম দফায় থ্যাম লুয়াং গুহার প্রবেশপথের কাছাকাছি দুই কিশোরকে নিয়ে আসছে উদ্ধারকারীরা। তবে উদ্ধার মিশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত কোনও কর্মকর্তা এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করতে পারেননি বলে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে।

থাই টেলিভিশন চ্যানেল স্প্রিং নিউজ বলছে, স্থানীয় সময় বিকেল ৫টা ৩৭ মিনিটে প্রথম কিশোরকে গুহা থেকে বের করে আনার পর হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। পরে ৫টা ৫০ মিনিটে দ্বিতীয় কিশোরকে নিয়ে আসেন উদ্ধারকারীরা। এর ১৬ মিনিট পর তৃতীয় কিশোরকেও গুহার ভেতর থেকে বাইরে নিয়ে আসা হয়। পরে তাদের হাসপাতালে পাঠানো হয়। চতুর্থ কিশোরকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এরপর আরও দুই জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। 

এদিকে গুহার বাইরে বৃষ্টি শুরু হওয়ায় বিশ্লেষকরা ধারণা করছেন, উদ্ধার কার্যক্রমে বিঘ্ন ঘটতে পারে।

১২ কিশোর ও তাদের ফুটবল কোচকে উদ্ধারে রোববার স্থানীয় সময় সকাল ১০টায় একটি উদ্ধারকারী দল গুহায় প্রবেশ করেছে বলে এক সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন অভিযান প্রধান নারংসাক ওজতনাকন। উদ্ধারকারী দলে ১৩ জন বিদেশি ও থাইল্যান্ড নৌবাহিনীর পাঁচ জন ডুবুরি আছেন। উদ্ধারের এই পরিকল্পনা সম্পর্কে আটকা পড়া কিশোর দলটির পাশাপাশি তাদের পরিবারগুলোকেও জানানো হয়েছে।

ওই কিশোররা ও তাদের কোচ ‘শারীরিক ও মানসিকভাবে খুব শক্ত আছে’বলে জানিয়েছেন নারংসাক। তারা ‘দৃঢ়প্রতিজ্ঞ’ও ‘উজ্জীবিত’ অবস্থায় আছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে, উদ্ধার মিশনের প্রধান ন্যারংস্যাক ওসোত্তানাকর্ন বলেন, গুহার উদ্ধার পথের জটিলতা ও অভিযানে নানামুখী সমস্যার কারণে এটা বলা যাচ্ছে না যে, কিশোরদের প্রথম দলকে বের করে আনতে ঠিক কত সময় লাগতে পারে।

গুহায় ১৮ সদস্যের উদ্ধারকারী দলে থাকা চিকিৎসকরা শিশুদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার পর প্রথম কাকে বের করে আনা হবে সেটি নির্ধারণ করবেন। তবে প্রথমবারের অভিযানে ঠিক কতজনকে বের করে নিয়ে আসা সম্ভব হবে সেটিও পরিষ্কার নয়।

উদ্ধার মিশনের যৌথ কমান্ড সেন্টারের প্রধান ন্যারংস্যাক ওসোত্তানাকর্ন এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলেছেন, ‘থাই নেভি সিলের পাঁচ সদস্যসহ বিদেশি ১৩ ডুবুরি সকাল ১০টায় গুহায় প্রবেশ করেছেন। এর মধ্যে ১০ জন চেম্বার-৯ (যেখানে কিশোররা আটকা আছেন) ও মাঝপথে ঝুঁকিপূর্ণ স্থান হিসেবে চিহ্নিত চেম্বার-৬ এর উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছেন। অন্য তিন ডুবুরি অভিযানে যোগ দিয়েছেন স্থানীয় সময় দুপুর ২টায়।

এপি/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়