• ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫

দুর্নীতির দায়ে নওয়াজ শরিফের ১০ বছরের কারাদণ্ড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ০৬ জুলাই ২০১৮, ১৮:৫২ | আপডেট : ০৬ জুলাই ২০১৮, ২৩:০৬

দুর্নীতির দায়ে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফকে ১০ এবং তার মেয়ে মরিয়ম নওয়াজকে সাত বছরের কারাদণ্ড দিলেন আদালত। মরিয়মের স্বামী ক্যাপ্টেন সফদরকেও এক বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

কারাদণ্ডের পাশাপাশি নওয়াজকে ৮০ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড ও মরিয়মকে ২০ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড জরিমানা করা হয়েছে। শুক্রবার পাকিস্তানের অ্যাকান্ট্যাবিলিটি কোর্ট এই রায় দেন বলে জানিয়েছে দেশটির শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম ডন।

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ থাকায় দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়া ন্যাশনাল অ্যাকাউন্ট্যাবিলিটি ব্যুরোকে(এনএবি) তাদের দায়িত্ব পালনে সহযোগিতা না করার জন্য এক বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। তবে উভয় দণ্ডই একই সঙ্গে কার্যকর হবে।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : চীনে তৈরি হচ্ছে ট্রাম্পের ২০২০ সালের নির্বাচনী পতাকা
--------------------------------------------------------

এদিকে লন্ডনে সম্পত্তি ক্রয়ের ক্ষেত্রে দুর্নীতির প্রশ্রয় দেয়ায় তার মেয়ে মরিয়মকে ৭ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। বাবার মতো এনএবিকে সহযোগিতা না করায় তাকেও এক বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। তার উভয় দণ্ডও একই সঙ্গে কার্যকর হবে।

মরিয়মের স্বামী সফদরকে এক বছরের কারাদণ্ড দেয়ার কারণ তিনিও স্ত্রী ও শ্বশুরের মতোই এনএবিকে তাদের দায়িত্ব পালনে সহযোগিতা করেননি। তাদের বিরুদ্ধে মামলা করে এএনবি।

বেশ কয়েকদিন ধরে শুনানির পর শুক্রবার এই রায় ঘোষণা করা হলো। এদিনও তিনবার সময় পাল্টানোর পর স্থানীয় সময় সাড়ে তিনটায় রায় ঘোষণা করেন বিচারক। রায় ঘোষণার সময় বিচারক দুই পক্ষের আইনজীবীকে চেম্বারে ডাকেন। সেখানে কোনও সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধিকে প্রবেশ করতে দেয়া হয়নি।

রায় ঘোষণার বিলম্বের কারণ সম্পর্কে বিচারক জানান, রায়ের কপি বিতরণে ফটোকপি করা প্রয়োজন ছিল। এজন্যই দেরি হয়েছে। দেরিতে রায় ঘোষণার জন্য গত বৃহস্পতিবার আদালতে আবেদন জানান নওয়াজের আইনজীবী। কিন্তু বিচারক তা খারিজ করে দেন।

আরও পড়ুন :

কে/

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়