• ঢাকা বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫

দুই যাত্রীর জন্য থামে যে ট্রেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ২৩:২৬
জাপান থেকে রাশিয়ার দূরত্ব সাত সাগর আর তেরো নদীর পার...কিন্তু প্রবহমান ঘটনা কখনও কখনও পুনরাবৃত্তি হয়। যেমনটা হয়েছে জাপানে ঘটে যাওয়া দুই বছর আগের একটি ঘটনার। যদিও স্থান-কাল-পাত্র পাল্টিয়েছে কিন্তু ঘটনার বিষয়বস্তু হুবহু মিলে গিয়েছে। খবর জি নিউজের।

রাশিয়ায় সেন্ট পিটার্সবার্গ থেকে মারমানস্কগামী একটি ট্রেনের লোকারণ্যহীন দুর্ভেদ্য অঞ্চলে নতুন স্টেশন দিল সে দেশের রেল কর্তৃপক্ষ। কারণ শুনলে অবাক হবেন। মাত্র দুই জন যাত্রীর জন্য সেখানে ট্রেন থামার ঘোষণা করে রেল কর্তৃপক্ষ। জানা গেছে, রাশিয়ার উত্তর-পশ্চিম অঞ্চলে পোয়াকোন্ডায় প্রতিদিন দুইজন মানুষের জন্য ট্রেন দাঁড়ায়। তারা হলেন ১৪ বছরের কারিনা কজলোভা ও তার দাদী নাতালিয়া কজলোভা। কারিনা স্কুল যাওয়ার জন্য দাদীর সঙ্গে তুষারস্নাত এলাকায় প্রতিদিন ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকে। সকাল সাড়ে ৭টার সময় সেখান দিয়ে পার হয় মারমানস্কগামী একটি ট্রেন। স্টপেজ না থাকলেও ট্রেন থামাতেন চালক। এমনকি স্কুল থেকে ফেরার সময় ওই ট্রেনের প্রত্যাশায় থাকত তারা। এবার তাদের দুই জনের জন্য রেল কর্তৃপক্ষ পাকাপাকিভাবে ট্রেন থামানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এর আগে ২০১৬ সালে এমনই ঘটনা দেখা গিয়েছিল জাপানেও। কামি শিরাটাকি নামে কলেজ পড়ুয়ার জন্য রোজ নিয়ম করে দুইবার ট্রেন এসে দাঁড়াত। ওই ট্রেনে করেই কলেজে যাতায়াত করতেন শিরাটাকি।

এ/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়