• ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫

বিশ্ব গণমাধ্যমে কাসেম আলীর ফাঁসি

আরটিভি আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬, ১৪:০৭ | আপডেট : ০১ অক্টোবর ২০১৬, ১০:০৬
মানবতাবিরোধী অপরাধে দণ্ডিত জামায়াত নেতা মীর কাসেম আলীর ফাঁসির খবর গুরুত্বের সঙ্গে প্রচার করে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো।

ফাঁসি কার্যকরের পরপরই বিবিসির খবরে বলা হয়, ইসলামপন্থী টাইকুন মীর কাসেম আলীকে ফাঁসিতে ঝুলিয়েছে বাংলাদেশ। তাকে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় ইসলামপন্থী দলটির নেতা ও অর্থদাতা হিসেবে উল্লেখ করে বিবিসি।

কাতারভিত্তিক আল জাজিরার শিরোনাম ছিল, জামায়াতের সবশেষ প্রসিদ্ধ নেতার ফাঁসি কার্যকর করেছে বাংলাদেশ।

প্রতিবেদনে বলা হয়, একাত্তরে পাকিস্তানের সঙ্গে যুদ্ধের সময় অপরাধের দায়ে ফাঁসিতে ঝুলানো হয়েছে মীর কাসেমকে।

অপরদিকে রয়টার্সের শিরোনাম ছিল, ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে হত্যা, নির্যাতন ও ধর্মীয় বিদ্বেষ ছড়ানোর মতো জঘন্য অপরাধের দায়ে ইসলামী দলের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিকে ফাঁসি দিয়েছে বাংলাদেশ। মীর কাসেমকে দলটির মূল আর্থিক পৃষ্ঠপোষক উল্লেখ করে ফাঁসি কার্যকরে মানুষের উল্লাসও গুরুত্ব পায় রয়টার্সের প্রতিবেদনে।

ব্রিটেনের গার্ডিয়ান পত্রিকায় বলা হয়, বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে হত্যা, নির্যাতনসহ অন্যান্য অপরাধের জন্য ফাঁসি দেয়া হয়েছে ইসলামী নেতা মীর কাসেমকে।

ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভির খবর ছিল, ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে হত্যা, নির্যাতনসহ অন্যান্য অপকর্মের দায়ে জামায়াতের প্রধান অর্থদাতা মীর কাসেমের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর।

পাকিস্তানের দোসর মীর কাসেমের মৃত্যুর খবর গুরুত্ব দিয়ে প্রকাশ করে দেশটির জিও নিউজ। তাদের খবরে বলা হয়, জামায়াতের শীর্ষ নেতাকে ফাঁসিতে ঝুলালো বাংলাদেশ। মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে সাজাপ্রাপ্ত মীর কাসেমকে ইসলামী দলটির প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে উল্লেখ করা হয়।

এছাড়াও মৃত্যুর খবর গুরুত্ব পায় পাকিস্তানের ডন, ভারতের দ্য হিন্দু, আনন্দবাজারসহ আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে।

এফএস/

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়