দিলীপ চক্রবর্তীকে চুমকির খোলা চিঠি

প্রকাশ | ১৭ আগস্ট ২০১৮, ১২:২৪ | আপডেট: ১৭ আগস্ট ২০১৮, ১৫:০৭

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
ছবি: সংগৃহীত

দেশ নাটকের ‘নিত্যপুরাণ’ নাটকে একলব্য চরিত্রে অভিনয় করে প্রশংসিত হয়েছেন অভিনয় শিল্পী দিলীপ চক্রবর্তী। ২০১২ সালে মারা যান দিলীপ। তার মৃত্যুর পর বেশ কয়েক বছর নাটকটির প্রদর্শনী বন্ধ ছিল। ২০১৭ সালের নভেম্বরে আবারও নাটকটির নিয়মিত মঞ্চায়ন শুরু হয়।

গত ১৮ বছরে ‘নিত্যপুরাণ’ নাটকে দ্রৌপদী চরিত্রে অভিনয় করেছেন চারজন অভিনেত্রী। তারা হলেন- শিরিন খান মনি, নাজনীন হাসান চুমকী, বন্যা মির্জা ও সুষমা সরকার। এবারই প্রথম এই চার অভিনেত্রী একসঙ্গে মঞ্চে দ্রৌপদী চরিত্রে অভিনয় করবেন।

এই প্রদর্শনীটি নিয়ে নির্দেশক মাসুম রেজা, চার অভিনেত্রী’সহ দেশ নাটকের প্রায় সবাই বেশ আবেগ-আপ্লুত হয়ে আছেন। এবার অভিনেত্রী চুমকির আবেগ-আপ্লুত এক খোলা চিঠি পাওয়া গেলো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। মঞ্চে উঠার আগে তার মনে পড়ছে সহশিল্পী দিলীপ চক্রবর্তীকে।

বৃহস্পতিবার রাতে ফেসবুকে চুমকি লিখেছেন, ‘দিলীপ দা, এখনও আমি রিহার্সাল ফ্লোরে বকা খায়। মাসুম ভাই বকে, নিশাত আপা বকা দেয়। কিন্তু আপনার কোনও বকা খেতে হয় না। আমার তো খুশী হবার কথা। খুশী হতে পারি না। আপনার বকা শোনার জন্য উদগ্রীব হয়ে থাকি। রিহার্সাল ফ্লোরে এখনও সেই হাসি হাসতে থাকি। তবুও আপনার এক দৃষ্টিতে পাথর চোখে তাকিয়ে থাকা দেখি না। খুঁজি আমি, আপনাকে খুঁজি। অন্তরের গহীন কোণে আছেন তবে কেন সাড়া দেন না? অন্তর জ্বলে রে দাদা। চোখ জলে ভরে, এতো অভিমান।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘আবারও সেই দ্রৌপদী আমি এবং আমরা উঠবো মঞ্চে। আলো জ্বলবে, এগুতে থাকবে একের পর এক দৃশ্য। আপনি নিশ্চয়ই দেখবেন। আমরা আপনাকে হৃদয়ে ধারণ করে উপস্থিত হবো। আশীর্বাদ করবেন। ইতি, আমি- আমরা আপনারই প্রিয় সহকর্মী।’

আরও পড়ুন  :

পিআর/জেএইচ