নাট্যশালায় আবারও ‘মর্ষকাম’

প্রকাশ | ০৮ আগস্ট ২০১৮, ২২:২৯ | আপডেট: ০৮ আগস্ট ২০১৮, ২৩:০৫

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
‘মর্ষকাম' নাটকের দৃশ্য। ছবি: সংগৃহীত

রাজধানীর সেগুনবাগিচাস্থ জাতীয় নাট্যশালার মূল মিলনায়তনে আগামী শুক্রবার (১০ আগস্ট) সন্ধ্যায় মঞ্চায়িত হবে থিয়েটার আর্ট ইউনিটের নাটক ‘মর্ষকাম'। আনিকা মাহিনের লেখা এই নাটকের নির্দেশনা দিয়েছেন রোকেয়া রফিক বেবী। এটি থিয়েটার আর্ট ইউনিটের ১৯তম প্রযোজনা। ২০১৬ সালের ১ নভেম্বর নাটকটি প্রথম  মঞ্চে আসে।

থিয়েটার আর্ট ইউনিটের প্রধান সমন্বয়ক ড. মোহাম্মদ বারী আরটিভি অনলাইনকে জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় নাটকটির ১৭তম প্রদর্শনী হবে। এদিন অগ্রিম টিকিট বুকিং দেয়া যাবে- ০১৮১৮০৫২০১৪ এই নম্বরে। এছাড়া প্রদর্শনীর আগে বিকেল ৫টা থেকে মিলনায়তনের কাউন্টার থেকেও টিকিট সংগ্রহ করা যাবে।

-------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : দুবাইয়ের হাসপাতালে সারা খান
-------------------------------------------------------

‘মর্ষকাম’ নাটকের কাহিনিতে দেখা যায়, তিনটি পৃথক অঙ্কে চক্রাকারে পুনরাবৃত হয় একই নাটক, তিনটি ভিন্ন রূপে। প্রতিটি অঙ্কে বার বার ফিরে আসে একই সব চরিত্র- প্রেসিডেন্ট, অর্থমন্ত্রী, সচিব, জেনারেল ও মিস্টার এক্স। চলতে থাকে রাজনীতি ও ক্ষমতার খেলা- যার একমাত্র নিয়ন্ত্রক কোনো এক অদৃশ্য পরাশক্তির প্রতিনিধি ‘মিস্টার এক্স’।

এ খেলা দমন ও নিয়ন্ত্রণের, এ খেলা মর্ষকামের। বার বার প্রতিরোধ গড়ে ওঠে, পরিবর্তিত হয় পুরনো রাজনৈতিক দৃশ্যপট আর সূচনা হয় নতুন রাজনৈতিক পটভূমির কোনো এক ভিন্ন স্থানে, ভিন্ন আঙ্গিকে। কিন্তু অবসান হয় না সেই পুরনো রাজনৈতিক ক্রিয়ার, সেই আদি ও অকৃত্রিম খেলার।

নাটকটির বিভিন্ন চরিত্রে নিয়মিত অভিনয় করছেন— মেহমুদ সিদ্দিকী, নুরুজ্জামান বাবু, মাহফুজ সুমন, সম্পদ, সজল চৌধুরী, সাথী রঞ্জন দে, সেলিম মাহবুব, হাসনাত প্রদীপ, স্বাধীন শাহ, সুজন রেজাউল, সরকার জামান, মোহাম্মদ বারী, চন্দন রেজা, ফেরদৌস আমিন বিপ্লব, লেমন, পিয়ার মোহাম্মদ, রাকিব, জায়েদ হোসেন, মাজিদুল মিঠু, ভাবনা, সূচি চৌধুরী, সুমন আকন্দ, আকাশ মোদক, আবির সায়েম, ফারহানা আক্তার,সুদীপ্ত।

নাটকের নেপথ্য কুশিলবদের মধ্যে মঞ্চ পরিকল্পনায় রয়েছেন শাহীনুর রহমান, সঙ্গীত পরিকল্পনায় সেলিম মাহবুব, আলোক পরিকল্পনায় আবু সুফিয়ান বিপ্লব, পোষাক পরিকল্পনা রোকেয়া রফিক বেবী, কোরিওগ্রাফি অনিকেত পাল বাবু।

আরও পড়ুন :

পিআর/ এমকে