• ঢাকা শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫

জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে বাংলাদেশে আরও বিনিয়োগ দরকার: মন্ত্রী

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৫ জুলাই ২০১৮, ১৭:১৭ | আপডেট : ১৫ জুলাই ২০১৮, ১৮:০৩
ভৌগোলিক কারণেই পরিবেশ দূষণে বাংলাদেশ সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত। বিশ্বে জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলা করা যেমন সম্ভব হচ্ছে না তেমনি বাংলাদেশেও। আমরা কেউ জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলা করতে পারছি না। জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে আমাদের আরও গবেষণা করা প্রয়োজন। দরকারও আরও বিনিয়োগ।

বললেন পরিবেশ ও বনমন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ। রোববার রাজধানীর প্যান প্যাসেফিক সোনারগাঁও হোটেলে  এফবিসিসিআই আয়োজিত পরিবেশ বির্পযয় নিয়ে এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে আমাদের আরও গবেষণা করা প্রয়োজন। উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে বাংলাদেশে আরও বেশি বিনিয়োগ দরকার। ক্ষতি ঠেকানোর জন্য বাঁধ সংস্কারসহ আমরা নানা ধরনের উদ্যোগ নিচ্ছি। দেশে পরিবেশবান্ধব বিনিয়োগ উৎসাহিত করা হচ্ছে। জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় আন্তর্জাতিক সহযোগিতা আরও বাড়াতে হবে।

তবেই জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে দেশের প্রবৃদ্ধি ক্ষতিগ্রস্ত হবে না বলে মন্তব্য করেন তিনি।

জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় সৌরশক্তি, সোলার হোম সিস্টেম, উদ্ভাবন, জলবায়ু পরিবর্তন ও কৃষি গবেষণায় আরও বেশি বিনিয়োগ প্রয়োজন বলেও জানান মন্ত্রী।

এক্ষেত্রে, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি। জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় বিনিয়োগের ক্ষেত্রে পাবলিক প্রাইভেট পার্টিনারশিপের (পিপিপি) উপরও জোর দেন মন্ত্রী

তিনি আরও বলেন, প্রতি বছর জলবায়ুর পরির্তনের কারণে আমাদের দেশে কৃষির উৎপাদনে প্রভাব পড়ছে। যার ফলে ব্যাপকহারে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন কৃষকরা। তাই এই বির্পযয় থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য আমাদের দেশে কৃষি গবেষণা কেন্দ্র বাড়াতে হবে।

এফবিসিসিআই সভাপতি সফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। তিনি বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে আমাদের এ্যাকশন প্ল্যান দরকার। এক্ষেত্রে ১০ বিলিয়ন ডলারের বিনিয়োগ প্রয়োজন।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সার্কের সেক্রেটারি জেনারেল মিস হিনা সাহেদ, সার্কের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাহবুবুল আলমসহ আরও অনেকে।

এসআর/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়