• ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫

ইরান ইস্যুতে অস্থির হয়ে উঠতে পারে তেলের বাজার

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৭ জুন ২০১৮, ১১:৫২ | আপডেট : ১৭ জুন ২০১৮, ১২:০৯
ইরান ও ভেনেজুয়েলার ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে অস্থির হয়ে উঠতে পারে জ্বালানি তেলের বৈশ্বিক বাজার। এখন যে তেল ব্যারেল প্রতি ৬০ থেকে ৭০ এর মধ্যে কেনাবেচা হচ্ছে, তা ঠেকতে পারে ১৪০ ডলারে।

তেল রপ্তানিকারক দেশগুলোর সংস্থা ওপেকের গভর্নর হোসেইন কাজেমপুর আরদেবিলি সম্প্রতি রয়টার্সকে এ তথ্য জানিয়েছেন।  

যুক্তরাষ্ট্র যে সৌদি আরবকে বাজার স্থিতিশীল করার অনুরোধ করেছে- তার সমালোচনাও করেছেন ওপেকের এই ইরানি কর্মকর্তা।

২০১৪ সালের মাঝামাঝিতে বিশ্ববাজারে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দাম ছিল ব্যারেলপ্রতি ১১৪ ডলার। কিন্তু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ কিছু দেশের অতিরিক্ত সরবরাহের কারণে এরপর থেকে দাম কমতে থাকে। দেড় বছরের মাথায় দাম ঠেকে ৩০ ডলারের নিচে। এতে প্রধান তেল উৎপাদক দেশগুলো অর্থনীতিতে কাবু হয়ে পড়ে।

পরে উৎপাদন সীমিত করার শর্ত মেনে বাজার চাঙা করতে কয়েক দফা বৈঠকে নামে উৎপাদক দেশগুলো। এর ফলে দাম টেনে টুনে ৭০ ডলার পর্যন্ত উঠে।

এখন ইরানের ওপর নিষেধাজ্ঞার ফলে নতুন সংকট তৈরি হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। উৎপাদন কমে যাওয়ার কারণে বাজার অস্থির হয়ে উঠতে পারে।

২০১৫ সালে ইরানের সঙ্গে স্বাক্ষরিত আন্তর্জাতিক পারমাণবিক চুক্তি থেকে গত মাসে  যুক্তরাষ্ট্রকে বের করে আনেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। পাশাপাশি ইরানের ওপর আবার নিষেধাজ্ঞা দেন।

ইরানের দাবি, এ ঘটনার ঠিক আগ মুহূর্তে ট্রাম্প প্রশাসন সৌদি আরব ও ওপেকভুক্ত কিছু দেশকে তেলের উৎপাদন দৈনিক ১০ লাখ ব্যারেল বাড়ানোর অনুরোধ জানিয়েছে।

কাজেমপুর বলেন, তেলবাজারে ইরানকে ঘায়েল করতে এবং ইরানের বদলে সৌদিকে বসাতে এ ধরনের মার্কিন নির্দেশনা পাগলামি ছাড়া কিছু না। তিনি বলেন, ওপেকভুক্ত কোনও দেশই প্রতিষ্ঠাতা সদস্য দুই দেশের ওপর এ ধরনের আচরণ মেনে নেবে না।ওপেকও এটা সহ্য করবে না। 

ইরান ও ভেনেজুয়েলা বর্তমানে তেল রপ্তানিকারক দেশগুলোর মধ্যে নেতৃত্ব স্থানে রয়েছে; সৌদি, রাশিয়ার আগেই যারা সাম্প্রতিক সময়ে তেলের বাজার চাঙা করতে সহায়তা করেছে।

এখন তারাই যদি মূল চুক্তি ভঙ্গ করে উৎপাদন বাড়িয়ে দেয়, তবে তা তেল বাজারে হতাশার খবর হবে। এতে করে নতুন করে ক্ষতির খাতায় উঠবে ইরান ও ভেনেজুয়েলা; কারণ মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে তারা ইচ্ছেমতো তেল উত্তোলন করতে পারবে না।

এসআর

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়