নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে নতুন গ্যাস জোনের সন্ধান

প্রকাশ | ০৪ জুন ২০১৮, ১২:৩৯ | আপডেট: ০৪ জুন ২০১৮, ১৪:৪৮

মনির হোসেন বাবু, নোয়াখালী প্রতিনিধি
প্রতীকী ছবি

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে গ্যাস ক্ষেত্রে নতুন গ্যাস জোনের সন্ধান পেয়েছে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম এক্সপ্লোরেশন অ্যান্ড প্রোডাকশন কোম্পানি লিমিটেড (বাপেক্স)।

বাপেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক একেএম রুহুল ইসলাম চৌধুরী আরটিভি অনলাইনকে আজ সোমবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, এটা ওয়ার্কওভার প্রকল্প। এটা আগে ছিল, নতুন করে ওয়ার্কওভার করা হয়েছে। আজ ভোর থেকে ওই জোন থেকে পরীক্ষামূলকভাবে গ্যাস উত্তোলন শুরু হয়েছে।

এটা এখন পরীক্ষামূলক পর্যায়ে আছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, পরীক্ষামূলক উত্তোলন পর্যবেক্ষণের পর গ্যাস জোনটি থেকে জাতীয় গ্রিডে গ্যাস সরবরাহ শুরু হবে।

প্রকল্পের খনন অনুসন্ধান কর্মকর্তারা জানান, কূপটির তৃতীয় জোনে সকাল ৯টার দিকে গ্যাসের প্রবাহ দেখে সেখানে আগুন দেয়া হয়। তবে আগামী দুইদিন কূপে গ্যাসের প্রবাহ রেকর্ড করে এখানে কী পরিমাণ গ্যাস রয়েছে এবং তা উত্তোলন কতটা লাভজনক হবে তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।

প্রাথমিক পর্যবেক্ষণের পর কূপটিতে গ্যাস মজুদ রয়েছে বলে পেট্রোবাংলাকে রিপোর্ট দাখিল করা হয়েছে। ওই রিপোর্টের প্রেক্ষিতে বাপেক্স কর্মকর্তারা প্রকল্পটি খননের উদ্যোগ নেয়।

প্রকল্পের আওতায় কেয়ার্ন কর্তৃক চিহ্নিত এলাকায় ২ ডি সাইসমিক সার্ভে পরিচালনার মাধ্যমে আহরিত উপাত্ত ও নমুনা বিশ্লেষণ করে কূপ খননের স্থান চিহ্নিত করার পর প্রায় ৩ হাজার ৫০০ মিটার (সাড়ে তিন কিলোমিটার) গভীর অনুসন্ধান কূপ খনন এবং কূপ পরীক্ষণ কার্যক্রম সম্পন্ন করা হয়।

বাপেক্সের তথ্য মতে, প্রকল্পটি সফলভাবে সমাপ্ত হলে আগামী ঈদের পর জাতীয় গ্রিডে গ্যাস সরবরাহ করা সম্ভব হবে। নোয়াখালীসহ দেশের শিল্প ও বাণিজ্যিক বিকাশে এ গ্যাস গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

পাশাপাশি নোয়াখালী, ফেনী, লক্ষীপুরে বিরাজমান তীব্র গ্যাস সঙ্কট নিরসনে সহায়তা করবেও আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

আরও পড়ুন :

এসআর/জেএইচ