• ঢাকা বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫

হঠাৎ বদলে গেল জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান নিয়োগ

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ০১ মার্চ ২০১৮, ১৩:৩৬ | আপডেট : ০১ মার্চ ২০১৮, ১৩:৫২
রাষ্ট্রায়ত্ত জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন ‘দোহাটেক নিউ মিডিয়া’ নামের একটি প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান লুনা শামসুদ্দোহা। বুধবার সন্ধ্যায় ওই পদে দায়িত্ব নিয়েছেন তিনি।

তিনি ২০১৬ সালের ২৭ জুন থেকে ব্যাংকটির পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

এর আগে সাবেক অর্থসচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুনকে চেয়ারম্যান করতে ব্যাংকটির পর্ষদকে ২৫ ফেব্রুয়ারি চিঠি দিয়েছিল অর্থ মন্ত্রণালয়। চিঠিতে বলা হয়েছিল, বাংলাদেশ ব্যাংকের কোনো আপত্তি না থাকলে পর্ষদ হেদায়েতুল্লাহ আল মামুনকে চেয়ারম্যান নিয়োগ দিতে পারে। 

তবে জনতা ব্যাংক ওই চিঠি আমলে নেয়নি বলে জানা যায়।

জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হিসেবে গত তিন বছর দায়িত্বে ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক মুখ্য সচিব শেখ মো. ওয়াহিদ-উজ-জামান। গত ৭ ডিসেম্বর তাঁর মেয়াদ শেষ হয়। এরপর নতুন কাউকে চেয়ারম্যান নিয়োগ দেয়নি সরকার।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, অর্থ মন্ত্রণালয় থেকে প্রজ্ঞাপন জারির পর চেয়ারম্যান পদে যোগদানপত্র গ্রহণ না করা এবং দুদিনের ব্যবধানে নতুন একজনকে নিয়োগ দেয়ার এ ঘটনা রহস্যময়।

অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব মো. ইউনুসুর রহমান বলেছেন, ব্যাংকের চেয়ারম্যান নিয়োগের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হতেই পারে। এর আগেও হয়েছে।

মাত্র ছয় বছরে এননটেক্স গ্রুপকে জনতা ব্যাংক ৫ হাজার ৫০৪ কোটি টাকা ঋণ দেয়। একক ঋণের বৃহৎ এই কেলেঙ্কারি নিয়ে এখনো আলোচনায় রাষ্ট্রমালিকানাধীন জনতা ব্যাংক।  

এই ঋণ আবার দেয়া হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক আবুল বারকাতের সময় থেকে। ২০০৯ সালের ৯ সেপ্টেম্বর থেকে পাঁচ বছর জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান ছিলেন তিনি।

ঋণের বিষয়টি সংবাদ মাধ্যমে আসার পর অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, বারকাতই ব্যাংকটি শেষ করে দিয়েছেন।

বিষয়টি নিয়ে তোলপাড় চলার মধ্যে চেয়ারম্যান নিয়োগে এই নাটকীয়তা দেখা যায়।

এসআর/এসএস

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়