• ঢাকা শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫

‘লিনেক্সের সব স্মার্টফোন সাজাই ক্রেতার কথা ভেবে’

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৮ মার্চ ২০১৭, ২০:০৩ | আপডেট : ১৯ মার্চ ২০১৭, ২০:১৭
সাধ্যের মধ্যে সাশ্রয়ী দামে বিশ্বমানের ইলেক্ট্রনিক্স পণ্য পৌঁছে দিতে আমেরিকান ব্র্যান্ড-লিনেক্স এখন বাংলাদেশে। উন্নত প্রযুক্তি ও গুণগত মানের জন্য দেশের বাজারে ব্র্যান্ডটির স্মার্টফোন ক্রেতাদের বেশ আকৃষ্ট করছে। আমেরিকায় রয়েছে ব্র্যান্ডটির বিশেষজ্ঞ টিম, যারা প্রতিনিয়ত অত্যাধুনিক প্রযুক্তি আর নিত্যনতুন সব ডিজাইন নিয়ে কাজ করছে। চলতি বছরে ৩টি ভিন্নধর্মী স্মার্টফোনসহ বেশকিছু হ্যান্ডসেট নিয়ে এরই মধ্যে বাংলাদেশের বাজারে প্রবেশ করেছে ব্র্যান্ডটি।

দেশের বাজারে ক্রেতাদের জন্য স্যামসাং ৫ হাজার থেকে ৮০ হাজার টাকা, সিম্ফনি ৮ হাজার থেকে ৭২ হাজার টাকা ও ওয়ালটন ১০ হাজার থেকে ৩০ হাজার টাকার মধ্যে স্মার্টফোন বিপণন করে থাকে।

লিনেক্স স্মার্টফোন সেক্ষেত্রে নতুন সংযোজন। ক্রেতার সাধ্যের মধ্যে সেবা দেয়ার লক্ষ্যে এর যাত্রা। লিনেক্স মোবাইল ফোনের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ নিয়ে জানিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক হুমায়ুন কবির বাবলু।

Lx Black, LX55, কার্ভড স্ক্রিণ Li11 মডেলের স্মার্টফোন বাজারে এনেছে লিনেক্স। স্মার্টফোনের মডেলগুলো থেকে ক্রেতারা কি কি সুবিধা ভোগ করবে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: ক্রেতারা সর্বাধুনিক OS Marshmallow 6.0 Android পাচ্ছে। সর্বাধুনিক প্রযুক্তির MKT Chipsetসহ হাই রেজুলেশন ক্যামেরা, এইচ.ডি ডিস্প্লে পারফরম্যান্স এবং গুণগত মানের নিশ্চয়তা পাচ্ছে।

বাংলাদেশে জনপ্রিয় স্মার্টফোনগুলোর মধ্যে স্যামসাং, সিম্ফনি, ওয়ালটন উল্লেখযোগ্য। সেখানে লিনেক্স আরেকটি সংযোজন বলা যেতে পারে। সেক্ষেত্রে লিনেক্স ক্রেতার সাধ্যের মধ্যে থেকে কি কি প্রোগ্রাম সাজিয়েছে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: লিনেক্স ক্রেতার ক্ষয়ক্ষমতার কথা ভেবেই সব স্মার্টফোন সাজিয়েছে এবং ভবিষ্যতেও ক্রেতার সাধ্যের মধ্যেই স্মার্টফোনগুলোর প্রোগ্রাম সাজাবে। যেমন বর্তমানে LX Black এর মধ্যে থাকছে ২জিবি র‌্যাম, ১৬ জিবি রম, ক্যামেরা থাকছে Front 5 MP Rear 8 MP, Battery 2200 mAh.। এছাড়া ক্রেতারা প্রতিটি LX Black এর সঙ্গে পাবে একটি VR Set Get Subwoofer Headphone.

লিনেক্স স্মার্টফোন-এর ক্রেতাদের জন্য সার্ভিস কতোটা সহজলভ্য হবে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: লিনেক্স সারাদেশে ১৪টি সার্ভিস সেন্টার নিয়ে যাত্রা শুরু করে। যা মার্চের মধ্যে ৩০টি হচ্ছে এবং জুনের মধ্যে আমরা ৪৮টি সার্ভিস সেবা দিতে পারবো। এছাড়া ক্রেতাদের সুবিধার কথা ভেবে আমরা হটলাইন সেবা প্রথম থেকেই শুরু করেছি। লিনেক্স এর প্রতিটি বক্সে হটলাইন নাম্বার দেয়া আছে।

লিনেক্স কি ধরনের প্রযুক্তি ব্যবহার করছে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: লিনেক্স OS: Marshmallow Android 6.0সহ থাকছে Fastest Hotspot, reliable 3G Network এবং fastest browsing performance এর নিশ্চয়তা।

লিনেক্স মোবাইলের কোন বিষয়টি ভিন্ন, যা অন্য স্মার্টফোন থেকে আলাদা করেছে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: আমাদের প্রতিটি মোবাইল ফোন আমরা নিজেরা ডিজাইন এবং ডেভেলপ করি। ইউএসএ-এর নিউ জার্সিতে রয়েছে আমাদের আর.এন.ডি. টিম, যারা প্রতিনিয়ত লিনেক্স মোবাইল এর ব্লু প্রিন্ট নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে। পাশাপাশি আমরা গুণগত মান নিশ্চিত করি। যেমন সর্বাধুনিক চিপসেট, হাই-রেজুলেশন ক্যামেরা, এইচডি ডিসপ্লে, মোবাইল হাই পারফরম্যান্সের নিশ্চয়তা দিচ্ছি।

লিনেক্স স্মার্টফোনে বাংলা কিবোর্ড থাকছে কি না?

হুমায়ুন কবির বাবলু: লিনেক্স এর সব মোবাইল (ফিচার ফোন বা স্মার্টফোন) এ বাংলা কিবোর্ড রয়েছে।

দেশের বাইরে বিভিন্ন প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ করছে লিনেক্স। সেক্ষেত্রে আপনাদের ভাবনাটা কি?

হুমায়ুন কবির বাবলু: আমাদের প্রতিটি পণ্যই আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন। এরই মধ্যে আমরা দেশের বাহিরে বিভিন্ন প্রদর্শনীতে অংশ নিয়েছি। এ কার্যক্রম অব্যাহত রাখবো।

বাংলাদেশে কর্মক্ষেত্র তৈরিতে লিনেক্স কতোটা ভূমিকা রাখবে?

হুমায়ুন কবির বাবলু: আশা করি, বিশেষ ভূমিকা পালন করবে। কারণ বর্তমানে আমাদের সেলস্, সার্ভিস, রিটেল, মার্কেটিং, প্রোডাক্ট, কমার্শিয়াল সব মিলে ৪৮ জন কর্মরত আছে। এপ্রিলের মধ্যে আরো ৩২ জন লিনেক্স-এর সঙ্গে যুক্ত হতে যাচ্ছে। আশা করছি, এ বছরের মধ্যেই লিনেক্স টিমের সংখ্যা হবে ১৫০। যা ব্যবসা সম্প্রসারণের সঙ্গে আরো বৃদ্ধি পাবে। এছাড়া ভবিষ্যতে লিনেক্স মোবাইল ও ইলেক্ট্রনিক্স পণ্য সামগ্রী দেশেই উৎপাদন করার লক্ষ্য রয়েছে আমাদের।

এমসি/ডিএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়