close
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৭ | ১৪ বৈশাখ ১৪২৪

গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিলেও খুনের দায় অস্বীকার নাগরীর

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২০ এপ্রিল ২০১৭, ১৩:২৯ | আপডেট : ২০ এপ্রিল ২০১৭, ১৩:৩৭
আলোচিত ব্যবসায়ী নুরুল ইসলাম হত্যার বিষয়ে মুখ খুলেছেন সাবেক কর কমিশনার শাহাবুদ্দীন নাগরী। পুলিশ রিমান্ডে খুনের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন তিনি। কিন্তু এর সঙ্গে নিজের জড়িত থাকার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন।

শুধু নাগরী নয় নুরুল ইসলাম হত্যায় মুখ খুলেছেন তার স্ত্রী নুরানী আক্তার সীমাও।

তিনি দাবি করছেন, স্ট্রোক করেই তার স্বামী নুরুল ইসলাম মারা গেছেন। কিন্তু তার একথায় আস্থা রাখতে পারছে না পুলিশ। সেই জন্যে রিমান্ডে থাকা শাহাবু্দ্দীন নাগরী ও সীমার দেয়া তথ্য খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

এদিকে ৫ দিনের রিমান্ডে থাকা শাহাবুদ্দীন নাগরী হত্যার কথা অস্বীকার করছেন বারবার। কিন্তু নুরুল ইসলাম ও সীমা দম্পতির সঙ্গে তার যোগাযোগের বিষয়টি স্বীকার করেছেন। এ বিষয়ে অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্যও দিয়েছেন।

গেলো ১৩ এপ্রিল রাজধানীর এলিফ্যান্ট রোডের ১৭০/১৭১নং ডম-ইনো অ্যাপার্টমেন্টের পঞ্চম তলার ভাড়া বাসায় খুন হন ব্যবসায়ী নুরুল ইসলাম।

পরে পুলিশ গিয়ে শোবার ঘরের মেঝে থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নিহতের বোন শাহানা রহমান কাজল বাদি হয়ে স্ত্রী নূরানী ও শাহাবুদ্দীন নাগরীসহ অজ্ঞাতপরিচয়দের বিরুদ্ধে নিউ মার্কেট থানায় মামলা করেন।

এরপরই  নূরানী, বন্ধু নাগরী এবং গাড়ি চালককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

বাসার ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায় খুনের দিন বিকেল ৩টা ১৩ মিনিটে নুরুল ইসলামের বাসায় গিয়েছিলেন শাহাবুদ্দীন নাগরী। প্রবেশের ৪ ঘণ্টা ৪ মিনিট পর সন্ধ্যা ৭টা ১৭ মিনিটে তিনি বেরিয়ে আসেন। 

এরপর দিন সকালে নুরুল ইসলামের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। শাহাবুদ্দীনের মোবাইল ফোন নম্বরও চেক করে দেখা হয়েছে।

 

এইচটি/জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়