• ঢাকা বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫

আজও স্বীকৃতি পাননি নাটোরের ৬ বীরাঙ্গনা

নাটোর প্রতিনিধি
|  ১৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ১২:২০ | আপডেট : ১৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯:১২
একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে হানাদার বাহিনীর হাতে নির্যাতিত নাটোরের ৬ বীরাঙ্গনা স্বাধীনতার ৪৫ বছর পরেও পাননি সরকারি বা বেসরকারি কোনো প্রতিষ্ঠানের সহযোগিতা। অন্যের বাড়িতে গৃহকর্মীর কাজ করে দুঃখ-কষ্টে পার করছেন জীবন। কোনো সংগঠন কোনো দিন তাদের পাশে এসে দাঁড়ায়নি বলে আভিযোগ এসব বীরাঙ্গনাদের।

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধে পাকবাহিনীর হাতে পাশবিক নির্যাতনের শিকার হন নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার দীঘলকান্দি গ্রামের নববধূ হাজেরা বেগম, দিঘাপতিয়ার লিলি বেগম, উলুপুর গ্রামের শেফালী বেগম, ঝাউতলার তফেজান বিবি, সেনভাগ লক্ষীপুর গ্রামের সাহেরা বেগম ও হয়বতপুরের মহরানী বেগম। স্বাধীনতার ৪৫ বছর পরও অন্যের অপবাদ ও কোনো সহায়তা ছাড়াই নিদারুণ কষ্টে বেচেঁ আছেন এসব বীরাঙ্গনা।

দেশের জন্য সবকিছু হারালেও তাদের অভিযোগ, এতোদিনেও কেউ তাদের সহায়তায় এগিয়ে আসেননি। তবে সরকারি উদ্যোগে এ বীরাঙ্গনাদের যথাযথ সম্মান দেয়া উচিত বলে মনে করেন স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডাররা।

এদিকে, দ্রুতই এসব গরিব বীরাঙ্গনাদের মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে তালিকাভুক্ত করা হোক-এমনটাই দাবি স্থানীয়দের।

ডিএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়