• ঢাকা রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫

নড়িয়ার ৩০ গ্রামে ঈদ মঙ্গলবার

শরীয়তপুর প্রতিনিধি
|  ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৫:১৫ | আপডেট : ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৬:৩৩
শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর পীরের অনুসারীরা জেলার চারটি উপজেলার ৩০টি গ্রামে মঙ্গলবার ঈদ-উল-আজহা পালন করবেন।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে নয়টায় জামাতে নামাজ শেষে সেমাই খেয়ে কুরবানি করে ঈদের আনন্দ উৎসব পালন করবেন তারা।

সকালে সুরেশ্বর দরবার শরীফে ঈদ জামাতে অন্তত ১০ হাজার ভক্ত ও মুরিদানরা অংশ নিবেন। সুরেশ্বর দরবার শরীফের প্রধান ঈদের জামাতে ইমামতি করবেন সুরেশ্বর দরবার শরীফের মুতওল্লি গদিনশীন পীর কেবলা শাহ সৈয়দ বেলাল নূরী।

-----------------------------------------------------
আরও পড়ুন : পোশাক শ্রমিকদের ছুটির চাপ মহাসড়কে
-----------------------------------------------------

নামাজ শেষে মোনাজাত করবেন সুরেশ্বর দরবার শরীফের মুতওল্লি গদিনশীন পীর কেবলা শাহ সৈয়দ কামাল নূরী।

প্রায় একশ বছরেরও বেশি সময় ধরে সুরেশ্বর দরবার শরীফের ভক্ত ও তাদের মুরিদানরা একই নিয়মে ঈদ উৎসব পালন করে আসছেন। এরমধ্যে নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর, চণ্ডিপুর, ইছাপাশা, থিরাপাড়া, ঘড়িষার, কদমতলী, নিথিরা, মানাখানা, নশাসন, ভুমখাড়া ও ভোজেশ্বর।

জাজিরা উপজেলার কালাইখার কান্দি, মাদবর কান্দি, শরীয়তপুর সদর উপজেলার বাঘিয়া, প্রেমতলা, কোটাপাড়া, বালাখানা, ডোমসার, শৌলপাড়া, ভেদরগঞ্জ উপজেলার লাকার্তা, পাপরাইল ও চরাঞ্চলের ১০টি গ্রামসহ প্রায় ৩০টি গ্রামের ঈদ উৎসব পালন করবে।

এ ব্যাপারে সুরেশ্বর দরবার শরীফের মুতওল্লি গদিনশীন পীর কেবলা শাহ সৈয়দ কামাল নূরী বলেন, বাবা পীর কেবলা জান শরীফ মাওলানা থেকে শুরু করে প্রায় একশ বছরেরও বেশি সময় ধরে সুরেশ্বর দরবার শরীফের ভক্ত ও মুরিদানরা সৌদি আরবের সঙ্গে মিল রেখে ঈদ পালন করে আসছেন। আমরাও সে সূত্র ধরে মঙ্গলবার পবিত্র ঈদ-উল-আজহা পালন করব।

আরও পড়ুন :

জেবি/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়