• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

পঞ্চগড়ে নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকে দুই শ্রমিকের মৃত্যু

পঞ্চগড় প্রতিনিধি
|  ০৮ জুলাই ২০১৮, ১৭:৩৪ | আপডেট : ০৮ জুলাই ২০১৮, ১৭:৪৩

পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া উপজেলায় একটি বাড়ির নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকে কাজ করতে নেমে দুই শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

নিহতরা হলেন- পঞ্চগড় সদর উপজেলার মীরগড়ের আলাউদ্দিনের ছেলে বাবলু(২০) এবং সাতমেড়া ইউনিয়নের বকশিগছের খয়রুল ইসলামের ছেলে মাহবুব হোসেন(৩০)। রোববার দুপুরে তেঁতুলিয়ার ভজনপুর ইউনিয়নের মালিগছের গমির উদ্দিনের বাড়িতে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

সাকিব (১৯) নামের এক প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, গত মাসে আমরা এই বাড়িতে দুটি সেপটিক ট্যাংকের ঢালাই কাজ করি। এদিন আমরা চারজন একটি ট্যাংকের মুখ খুলে ঢালাই কাজে ব্যবহৃত সাটারিং(বাঁশ ও কাঠ) খুলতে যাই। তখন আমি আগে নামতে চাইলে আমার চেয়ে বয়সে বড় বাবলু আগে নিচে নামেন। নিচে নামার সঙ্গে সঙ্গে তিনি জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। আমরা তাকে উদ্ধারের চেষ্টা করি। পরে মাহবুব তাকে উদ্ধার করতে গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন। একপর্যায়ে আমাদের চিৎকারে স্থানীয়রা এসে অজ্ঞান অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে পঞ্চগড় আধুনিক হাসপাতালে নিয়ে যায়। কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার(আরএমও) ডা. মো. মনোয়ার হোসেন বলেন, আমরা দুজন শ্রমিককেই মৃত অবস্থায় পেয়েছি। এই ধরনের নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংক দীর্ঘ এক থেকে দেড় মাস ধরে বন্ধ থাকলে সেখানে অক্সিজেন কমে গিয়ে কার্বনডাই অক্সাইড জমা হয়। এতে এই দুজনের মৃত্যু হয়েছে বলে আমরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি।

এই বিষয়ে পঞ্চগড় সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) রবিউল হাসান সরকার বলেন, আমরা মরদেহ দুটির প্রাথমিক সুরতহাল করেছি।

কে/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়