• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

কুড়িগ্রামে ২৫টি গ্রামের ৩০ হাজার মানুষ পানিবন্দি

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি
|  ০৫ জুলাই ২০১৮, ১৯:০১ | আপডেট : ০৫ জুলাই ২০১৮, ১৯:০৯
কুড়িগ্রামের ধরলা, তিস্তা, ব্রহ্মপুত্র, গঙ্গাধর, দুধকুমারসহ ১৬টি নদ-নদীর পানি বাড়তে শুরু করেছে।

দুধকুমার নদের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় ভূরুঙ্গামারী উপজেলার ছয়টি ইউনিয়নের ২৫টি গ্রামের প্রায় ৩০ হাজার মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।

উপজেলার সদর ইউনিয়নের ইসলামপুর সোনাহাট ইউনিয়নের চর বলদিয়া, মাহিগঞ্জ চান্দুনিয়া, ফকিরপাড়া, আসাম পাড়া, গনাইরকুটি, পাইকেরছড়া ইউনিয়নের পাইকডাঙ্গা, ছিট পাইকেরছড়া, শিলখুড়ি ইউনিয়নের শালঝোড়, তিলাই ইউনিয়নের খোঁচাবাড়ি, বলদিয়া ইউনিয়নের চর সতিপুরি, আন্ধারীঝাড় ইউনিয়নের হ্যালোডাঙ্গা ও বারুইটারী গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। 

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : স্ত্রী হত্যায় স্বামীর ফাঁসি
--------------------------------------------------------

বৃহস্পতিবার সকাল ছয়টায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্যমতে, ধরলা নদীর পানি বিপদসীমার ১৮ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে ২৬দশমিক তিন সেন্টিমিটার এবং ব্রহ্মপুত্র নদের চিলমারী বন্দর পয়েন্টে ২২ দশমিক ৯২ সেন্টিমিটার, নুনখাওয়া পয়েন্টে ২৫ দশমিক ১০ সেন্টিমিটার এবং তিস্তা নদী কাউনিয়া রেল ব্রিজ পয়েন্টে ২৮ দশমিক ১০ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

ভূরুঙ্গামারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এসএইচএম মাগফারুল হাসান আব্বাসী আরটিভি অনলাইনকে জানান, উপজেলার বেশ কয়েকটি ইউনিয়নের প্রায় ২৫টি গ্রামে পানি উঠেছে। তবে আজ সকাল থেকে পানি কিছুটা কমতে শুরু করেছে। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বন্যাসহ প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলার জন্য সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন :

জেবি/ এমকে 

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়