• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

হোটেলে অচেতন নারীর পাশে কলেজছাত্রের মরদেহ

পটুয়াখালী প্রতিনিধি
|  ২১ মার্চ ২০১৮, ১৩:০৯ | আপডেট : ২১ মার্চ ২০১৮, ১৩:১৫
পর্যটন নগরী পটুয়াখালীর কুয়াকাটার এক আবাসিক হোটেল থেকে কলেজছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এসময় মরদেহের পাশ থেকে অচেতন অবস্থায় এক নারীকে উদ্ধার করা হয়েছে। 

ওই নারীকে কুয়াকাটা ২০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে পুলিশ পায়রা আবাসিক হোটেলের ৩০১ নম্বর কক্ষের দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে বিছানার ওপর থেকে তাদের উদ্ধার করে।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন: চট্টগ্রামে বঙ্গবন্ধু কমপ্লেক্স উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
--------------------------------------------------------

নিহত কলেজছাত্রের নাম জাহিদুল (৩০)। তিনি খুলনা বিএল কলেজের ছাত্র এবং সোনাডাঙ্গা এলাকার হাফিজুর রহমানের ছেলে বলে হোটেলের ঠিকানা অনুযায়ী জানা গেছে।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মিজানুর রহমান আরটিভি অনলাইনকে জানান, গেলো ১৮ মার্চ স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে ওই দুই পর্যটক কুয়াকাটার আবাসিক হোটেল পায়রার ৩০১ নম্বর কক্ষে উঠেন। গতকাল মঙ্গলবার দিনভর তাদের কোনো সাড়া না পাওয়ায় পুলিশকে খবর দেয় হোটেল কর্তৃপক্ষ।

পরে কুয়াকাটা ট্যুরিস্ট পুলিশ ও মহিপুর থানা পুলিশ যৌথভাবে রাত সাড়ে ১০টার দিকে হোটেল কক্ষের দরজা ভেঙে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে জাহিদুলকে চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করে। ওই নারী এখনো হাসপাতালে অচেতন অবস্থায় আছে।

ওসি আরও জানান, হোটেলের ওই কক্ষ থেকে ‘ক্লোনাজিপাম’ ও ‘প্রোমিথাজিন’ নামের শতাধিক ট্যাবলেটের খোসা উদ্ধার করা হয়েছে। ডায়রিতে উল্লেখ করা ঠিকানা যাচাই এবং মৃত্যুর কারণ অনুসন্ধান করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন:

জেবি/এসএস

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়