• ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫

আজ পটুয়াখালী মুক্ত দিবস

পটুয়াখালী প্রতিনিধি
|  ০৮ ডিসেম্বর ২০১৭, ১১:১৩ | আপডেট : ০৮ ডিসেম্বর ২০১৭, ১৫:২৫
আজ ৮ ডিসেম্বর পটুয়াখালী মুক্ত দিবস। দেশ স্বাধীন হওয়ার ৮ দিন আগেই একাত্তরের এইদিনে পটুয়াখালীকে পাক হানাদার মুক্ত করেছিল বীর মুক্তিযোদ্ধারা।

এদিন ভোরের সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে বিজয় পতাকা উড়েছিল পটুয়াখালীর মুক্ত আকাশে। জনতার বিজয় উল্লাসে আর ‘জয় বাংলা’স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠে পটুয়াখালীর মুক্ত জনপদ।

একাত্তরের ২৬ এপ্রিল পাক হানাদার বাহিনী পটুয়াখালীকে দখল করে নেয় এবং ওইদিনই হিংস্র আক্রোশে ঝাঁপিয়ে পড়ে শহরের নিরস্ত্র জনতার ওপর চালায় গণহত্যা। পাক সেনাদের প্রতিরোধ করতে গিয়ে সেদিন পটুয়াখালীতে শহীদ হন সাত আনসার সদস্য। পাক সেনারা শুধু শহরের মাদবর বাড়িতেই হত্যা করে ১৭ জন নারী-পুরুষকে। এমনিভাবে শহরের বিভিন্ন এলাকায় নির্বিচারে হত্যা করা হয় শত শত নারী-পুরুষ ও শিশু-কিশোরকে।

পরবর্তীতে মুক্তিযোদ্ধারা পটুয়াখালীকে হানাদার মুক্ত করার প্রস্তুতি নেয়। তারা দফায় দফায় আক্রমণ চালাতে থাকে পাক সেনা ঘাঁটিতে। এতে দিশেহারা হয়ে পড়ে পাক বাহিনী। মুক্তিযোদ্ধাদের ক্রমাগত আক্রমণে টিকতে না পেরে ৭ ডিসেম্বর রাতের অন্ধকারে পটুয়াখালী শহর থেকে পালিয়ে যায় পাক সেনারা। ৮ ডিসেম্বরের ভোরের সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে ছড়িয়ে পড়ে পাক সেনাদের পালিয়ে যাবার খবর। এ খবরে হাজার হাজার মুক্তিপাগল জনতা স্বাধীন বাংলার মানচিত্র খচিত লাল সবুজের পতাকা নিয়ে ঘর থেকে বেরিয়ে আসে রাস্তায়। তাদের বিজয় উল্লাসে প্রকম্পিত হয়ে ওঠে পটুয়াখালীর মুক্ত শহরটি।

জেবি/আরকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়