close
ঢাকা, রোববার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭ | ০৩ পৌষ ১৪২৪

দিনাজপুরে আমনের বাম্পার ফলন

দিনাজপুর প্রতিনিধি
|  ১৯ নভেম্বর ২০১৭, ১০:২১ | আপডেট : ১৯ নভেম্বর ২০১৭, ১৫:৩৩
দিনাজপুরে দু'দফা বন্যায় ব্যাপক ক্ষতি হলেও পরবর্তীতে অনুকূল আবহাওয়ায় বাম্পার ফলন হয়েছে আমনের ধানের। তবে এখনো ধানের ক্রয়মূল্য নির্ধারণ না করায় ধানের ন্যায্য দাম পাওয়া নিয়ে শঙ্কিত কৃষকরা।

ধানের জেলা হিসেবে পরিচিত দিনাজপুরে দু'দফা বন্যায় ব্যাপক ক্ষতি হয় আমনদের আবাদ। তবে বন্যা পরবর্তী অনুকূল আবহাওয়া ও কৃষকদের চেষ্টায় এ বছর বাম্পার ফলন হয়েছে আমন ধানের।

২ লাখ ৫৩ হাজার ৬৮৭ হেক্টর জমিতে আমন আবাদের লক্ষ্য থাকলেও আবাদ হয় ২ লাখ ৫৬ হাজার ৭১০ হেক্টর জমিতে।

তবে বন্যা পরবর্তীতে ধানের আবাদ করতে গিয়ে চারা রোপণসহ বাড়তি কীটনাশক প্রয়োগে অতিরিক্ত খরচ বহন করতে হয়েছে কৃষকদের।

কিন্তু সরকার এখনও ধান কেনার মূল্য নির্ধারণ না করায় ধানের ন্যায্য দাম পাওয়া নিয়ে শঙ্কায় কৃষকরা।

এদিকে গাইবান্ধায় ১ লাখ ১৭ হাজার ৫০০ হেক্টর জমিতে আমনের আবাদ করা হয়। কিন্তু দু দফা বন্যায় ৭ হাজার হেক্টর জমিতে কম আবাদ হয় আমন চাষ।

অন্যদিকে আমন ধান আক্রান্ত হচ্ছে রোগ-বালাই ও পোকা-মাকড়ের আক্রমণে।

এ বিষয়ে গাইবান্ধা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আ.ক.ম রুহুল জানান, আমনের ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে কৃষকদের এ বিষয়ে সঠিক পরামর্শ দেয়া হবে। এছাড়া বন্যার ক্ষতি সার্বিক ধান উৎপাদনে প্রভাব ফেলবেনা বলেও জানান তিনি।

তবে আমনের আবাদের ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে সরকারের সহযোগিতা চান কৃষকরা।

 

আরকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়