• ঢাকা শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫

‘যা ঘটেছে, তা ওদের চরিত্র’

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৪ জানুয়ারি ২০১৮, ১৮:২১ | আপডেট : ২৪ জানুয়ারি ২০১৮, ১৮:২৮
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে যা ঘটেছে, তা ওদের চরিত্র। এটা ছাত্রলীগের নতুন কিছু নয়, তারা বহুবার শিক্ষকদের মেরেছে, ছাত্রদের মেরেছে।

বললেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার দুপুরে ঢাকার বনানী কবরস্থানে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর কবরে শ্রদ্ধা জানানোর পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। আজ কোকোর তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘যখনই ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে কেউ অবস্থান নিয়েছে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিক্টোরিয়াল অথোরিটির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে, তখনই তাদের হাতিয়ার হয়ে তারা (ছাত্রলীগ) আক্রমণ করেছে গণতন্ত্রকামী মানুষের ওপর।’ 

তিনি বলেন, ছাত্রলীগ জোর করে দেশ-সমাজ-রাষ্ট্রক্ষমতা দখলে রাখতে চায়। কিন্তু তারা তা পারবে না। এর অবসান হবেই। এ দেশের মানুষ নিঃসন্দেহে তাদের পরাজিত করবে।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন: ভোলায় দক্ষিণ এশিয়ার সর্বোচ্চ ওয়াচ টাওয়ার উদ্বোধন
--------------------------------------------------------

মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার চেষ্টা করছে নির্বাচন যেন না হয়। তারা জানে, সত্যিকার অর্থে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন হলে তারা কখনোই নির্বাচিত হবে না। 

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের দাবিতেই তত্ত্বাবধায়ক ব্যবস্থা এসেছিল। তত্ত্বাবধায়ক সরকারব্যবস্থা বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। আজকে দলীয় সরকারের অধীনে জোর করে নির্বাচন করছে সরকার।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, এই সরকার মানুষের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। জনগণের ভোট দেওয়ার ন্যূনতম অধিকারও কেড়ে নিয়েছে। আজকে কথা বলার, লেখার ও সংগঠন করার সুযোগ নেই। রাস্তায় বের হওয়ার সুযোগ নেই। এমনকি খালেদা জিয়া আদালতে হাজিরা দিতে গেলে দলের তরুণ নেতা-কর্মীদের অন্যায়ভাবে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। 

তিনি বলেন, আমরা স্পষ্টভাবে বলেছি, নির্বাচনের সময়ে নিরপেক্ষ সরকার চাই। যা ছিল, এ দেশের মানুষ তা গ্রহণ করেছিল। তিনটি নির্বাচন এখানে হয়েছে।

আরও পড়ুন: 

এসজে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়