আগামীকাল মহান বিজয় দিবস

সাভারে প্রস্তুত জাতীয় স্মৃতিসৌধ

প্রকাশ | ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭, ১১:৫৮

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট

মহান বিজয় দিবস ১৬ ডিসেম্বর। বাংলাদেশের ইতিহাসের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন। যারা বুকের তাজা রক্ত দিয়ে এ বিজয় আর বাঙালি জাতির সবচেয়ে আনন্দের দিন এনে দিয়েছে সেইসব শহীদদের বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করবে দেশের সর্বস্তরের মানুষ। তাই প্রতিবারের মতো এবারও মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে জাতির শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় সিক্ত হতে প্রস্তুত সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধ।

জাতির গৌরব আর অহঙ্কারের এই দিনটিতে স্মৃতিসৌধ প্রাঙ্গণে নামবে লাখো মানুষের ঢল। তাদের হৃদয় নিংড়ানো শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় ফুলে ফুলে ভরে উঠবে শহীদ বেদী। দিবসটি উপলক্ষে গণপূর্ত বিভাগের কর্মীদের টানা কয়েকদিনের অক্লান্ত পরিশ্রমে এক নতুন রূপ ধারণ করেছে স্মৃতিসৌধ প্রাঙ্গণ। লাল-সবুজের আভায় সেজেছে পুরো স্মৃতিসৌধ এলাকা।

সাভার গণপূর্ত বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মিজানুর রহমান বলেন, ‘টানা কয়েকদিন ধরে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা শেষে স্মৃতিসৌধ সেজেছে ভিন্নরূপে। অন্যবারের তুলনায় মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে এবার স্মৃতিসৌধকে নতুন আঙ্গিকে সাজানো হয়েছে। শেষ করা হয়েছে ধোয়ামোছা ও রং-তুলির কাজ। স্মৃতিসৌধের বিভিন্ন ধাপে রংতুলির আঁচড়ের আল্পনায় অপরূপ সাজে সাজানো হয়েছে। স্মৃতিসৌধ মিনারের সামনে হেরিংবন্ড ধরে নিচু জায়গাগুলোতে গাঢ় সবুজ ঘাসের মধ্যে শোভা পেয়েছে লাল, নীল, হলুদ, বেগুনিসহ নানা রঙের ফুল গাছের চারা। যা প্রতিবারের মতো এবারও সৌধ এলাকাকে এনে দিয়েছে রঙিন ও বর্ণিল রূপ।’

ঢাকার জেলার পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমান বলেন, ‘অন্যবারের তুলনায় এবার দিগুণ নিরাপত্তা নেওয়া হয়েছে। ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের দু’পাশ ও ব্রিজসহ বিভিন্ন পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েনের পাশাপাশি বসানো হয়েছে বাড়তি পুলিশি চেকপোস্ট। বসানো হয়েছে অর্ধশতাধিক সিসি ক্যামেরা ও ওয়াচ টাওয়ার। এছাড়াও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিয়োজিতসহ বাড়ানো হয়েছে সার্বক্ষণিক গোয়েন্দা নজরদারি। সাভারের আমিনবাজার থেকে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের জাতীয় স্মৃতিসৌধ পর্যন্ত তিনস্তরের নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘১৬ ডিসেম্বরের প্রথম প্রহরে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিদেশি কূটনীতিকদের শ্রদ্ধা নিবেদনের পর তা সর্ব সাধারণের জন্য উন্মুক্ত করা হবে।’

পি/