• ঢাকা রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫

কালো পতাকা উড়িয়ে ইয়াহিয়ার বৈঠকে আসেন বঙ্গবন্ধু

আতিকা রহমান
|  ১৬ মার্চ ২০১৭, ১২:৩৭ | আপডেট : ১৬ মার্চ ২০১৭, ১৬:৫৪
একাত্তরের এই দিনে প্রেসিডেন্ট হাউজে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে বৈঠক করেন ইয়াহিয়া খান। পরে রাতে প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া তার জেনারেলদের নিয়ে বসে বাঙালি হত্যার নীল নকশা প্রণয়ন করেন। এদিন নিজ আকাশসীমা দিয়ে সব বিদেশি বিমানের পূর্ব পাকিস্তানে যাওয়া নিষিদ্ধ করে ভারত সরকার।

একাত্তরের ১৬ মার্চ, গাড়িতে কালো পতাকা উড়িয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আসেন প্রেসিডেন্ট হাউজে। অত্যন্ত গোপনে হঠাৎ করে ঢাকায় এসে প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া খান নজিরবিহীন নিরাপত্তার মধ্যে প্রেসিডেন্ট ভবনে পাকিস্তানের সংখ্যাগরিষ্ঠ সংসদীয় দলের নেতা শেখ মুজিবের সঙ্গে এ বৈঠকে মিলিত হন।মুজিব-ইয়াহিয়ার প্রথম বৈঠক এটি।

এদিকে, প্রেসিডেন্ট হাউজের কিছু দূরে অবস্থান নিয়ে ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের নেতা-কর্মীরা ‘জয় বাংলা’, ‘জয় বঙ্গবন্ধু’ শ্লোগান দেয়। এমন শ্লোগান অনেকটাই চাপে ফেলে ইয়াহিয়াকে।

আড়াই ঘণ্টা বৈঠক শেষে প্রেসিডেন্ট হাউস থেকে বেরিয়ে আসেন বাংলার লাখো কোটি মানুষের নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তিনি অপেক্ষমাণ সাংবাদিকদের বলেন, দেশের রাজনৈতিক ও অন্যান্য পরিস্থিতি নিয়ে তারা আলোচনা করেছেন। আলোচনা আরো চলবে।

দিনে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে বৈঠক শেষে, রাতে জেনারেলদের সঙ্গে বাঙ্গালি হত্যার নিখুঁত পরিকল্পনায় বসেন ইয়াহিয়া।

১৬ মার্চ, লন্ডনের গার্ডিয়ান পত্রিকায় একটি রিপোর্ট প্রকাশ হয়। তাতে বলা হয়, খুলনায় সংগ্রাম কমিটির ট্রেনিং সেন্টারে ৫৮ গ্রামের ৩শ’ লোক ট্রেনিং নিচ্ছে। 

পাক গোয়েন্দারা রাওয়াল পিন্ডিতে বার্তা পাঠায়, ‘রাষ্ট্রের কোষাগারে জমা হওয়া দুই কোটি ৪৪ হাজার টাকা শেখ মুজিব সামরিক খাতে খরচের নির্দেশ দিয়েছেন’।

অন্যদিকে, ভারত সরকার তার ভূখণ্ডের ওপর দিয়ে সব বিদেশি বিমানের পূর্ব পাকিস্তান যাওয়া নিষিদ্ধ করে।

জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়